মেইন ম্যেনু

অর্থমন্ত্রীর কটুক্তির প্রতিবাদে বেরোবি শিক্ষক সমিতির বিক্ষোভ

বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সম্পর্কে অর্থমন্ত্রীর শিষ্টাচার বহির্ভুত বক্তব্যের প্রতিবাদে কর্মবিরতি, কালো ব্যাজ ধারণ ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে করেছে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী আজ বৃহস্পতিবার পূর্ণদিবস কর্মবিরতি পালন করাসহ সকাল ১১টায় ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করা হয় সমিতির পক্ষ থেকে। একই সঙ্গে অর্থমন্ত্রীর শিষ্টাচার বহির্ভূত বক্তব্যের নিন্দা জানিয়ে কালো ব্যাজ ধারণ করেন শিক্ষকবৃন্দ। কর্মবিরতির কারনে ক্লাস পরীক্ষা বর্জনসহ কোনো কাজে অংশ নেননি তাঁরা।

আজ বাংলাদেশ শিক্ষক ফেডারেশনের ঘোষণা অনুযায়ী আগামী রবিবার ও বৃহস্পতিবার পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন করবে বেরোবি শিক্ষকবৃন্দ। বৃহস্পতিবার রাতে এক মুঠোফোনে এ তথ্য জানান বেরোবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক পরিমল চন্দ্র বর্ম্মণ।

এর আগে আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. পরিমল চন্দ্র বর্মণের নের্তৃত্বে বিক্ষোভ শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে শিক্ষকরা বলেন, ‘সেরকারের সিনিয়র একজন মন্ত্রীর এমন বক্তব্য অনভিপ্রেত। এজন্য যত দ্রুত সম্ভব জাতির কাছে তাঁর ক্ষমা চাওয়া উচিত।’ তিনি তাঁর বক্তব্য প্রত্যাহার করে দ্রুত ক্ষমা না চাইলে শিক্ষকবৃন্দ আরো কঠোর কর্মসূচি দেয়ার হুমকি দেন। এছাড়াও অর্থমন্ত্রী এমন বক্তব্য দিয়ে তাঁর শপথ ভঙ্গ করেছেন বলে তাঁর পদত্যাগের দাবিও করেন শিক্ষকবৃন্দ। কর্মসূচিতে বিভিন্ন বিভাগের অর্ধ শতাধিক শিক্ষক অংশ নেন।

অন্য দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সম্পর্কে দেয়া বক্তব্য প্রত্যাহার সহ দুঃখ প্রকাশ করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। আজ বৃহস্পতিবার বিকাল সোয়া চারটার দিকে ‘জ্ঞানের অভাবে শিক্ষকরা আন্দোলন করছে’ এ বক্তব্য সহ অন্যান্য বক্তব্যের জন্য এক সংবাদ সম্মেলনে দুঃখ প্রকাশ করেন মন্ত্রী।






মন্তব্য চালু নেই