মেইন ম্যেনু

অ্যালার্জি দূর করে ফেলুন ঘরোয়া ৫ উপায়ে

কিছু মানুষ সারা বছর অ্যালার্জি সমস্যায় ভুগে থাকেন। ধুলোবালি, খাবার, পোকা মাকড়, পোষা প্রাণী এমনকি কিছু ওষুধের কারণেও বিভিন্ন অ্যালার্জি সমস্যা হতে পারে। অধিকাংশ সময় এই ধরণের অ্যালার্জি কিছুদিন পর নিজে থেকে ভাল হয়ে যায়। আবার অনেক সময় এই সাধারণ রোগটিও ভয়ংকর আকার ধারণ করতে পারে। ঘরোয়া কিছু উপায়ে অ্যালার্জি থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব। সহজলভ্য এই উপাদানগুলো আপনার অ্যালার্জি দূর করে দেবে খুব সহজে।

১। আপেল সিডার ভিনেগার

এক গ্লাস পানিতে এক চা চামচ আপেল সিডার ভিনেগার মিশিয়ে নিন। এটি দিনে তিনবার পান করুন। এই পানীয়টি অ্যালার্জি অ্যাটাক হওয়া রোধ করবে। এর প্রাকৃতিক হিলিং উপাদানসমূহ অ্যালার্জি দূর করে দেয়।

২। পেঁয়াজ পানি

একটি লাল পেঁয়াজ, চার কাপ পানি এবং মধু। পাতলা করে কাটা পেঁয়াজের টুকরো পানিতে ৮ থেকে ১২ ঘন্টা ভিজিয়ে রাখুন। এটি দিনে দুইবার পান করুন। স্বাদ বৃদ্ধির জন্য এতে মধু মিশিয়ে নিতে পারেন। আপনি এটি ফ্রিজে ৪ দিন পর্যন্ত সংরক্ষণ করতে পারেন। পেঁয়াজে কোয়ারসিটেন নামক উপাদান রয়েছে যা অ্যালার্জি লক্ষণ দূর করে দেয়।

৩। মধু

মধু অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি ফাঙ্গাল উপাদানের জন্য সুপরিচিত। এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে অ্যালার্জি জীবাণু বিরুদ্ধে লড়াই করে থাকে।

৪। গ্রীণ টি

ফুড অ্যালার্জি দূর করতে গ্রীণ টি বেশ কার্যকর। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টিইনফ্লামেনটরি উপাদান হজমশক্তি বৃদ্ধি করে। এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে।

৫। নেটল(বিছুটি) পেপারমেন্ট টি

এক চা চামচ ড্রাই পিপারমিন্ট অথবা ১/৪ কাপ ফ্রেশ পিপারমিন্ট, এক চা চামচ ড্রাই নেটল পাতা গুঁড়ো অথবা ১/৪ কাপ বিছুটি পাতা কুচি, মধু অথবা লেবুর রস (ইচ্ছা) এবং পানি। একটি পাত্রে নেটল এবং পেপারমেন্ট মিশিয়ে জ্বাল দিন। ১০-১৫ মিনিট জ্বালা দেওয়ার পর এরসাথে মধু মেশান। এটি দিনে দুইবার পান করুন।






মন্তব্য চালু নেই