মেইন ম্যেনু

আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি আগের চেয়ে ভালো : শহিদুল হক

পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) একেএম শহিদুল হক বলেছেন, দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি পূর্বের যে কোনো সময়ের তুলনায় অনেক ভালো। সামান্য চুরি, ডাকাতি ও হত্যার মতো অপরাধ এখন অনেক কম হচ্ছে। আমাদের মতে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি এখনও অনেক নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিপিএস বিভাগের ‘একবিংশ শতাব্দিতে পুলিশিং’ শীর্ষক সম্মেলনে যোগদানের পূর্বে তিনি এসব কথা বলেন।

নারায়নগঞ্জে শিক্ষক লাঞ্ছিতের ঘটনা প্রসঙ্গে আইজিপি বলেন, আমরা সবাই শিক্ষকদের শ্রদ্ধা করি। আমরা আমাদের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের সামনে পেলে পায়ে ধরে সালাম করি। সেখানে যে ঘটনা ঘটেছে সেই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশের কিছু করার নেই। এই ঘটনায় আদালতে মামলা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে যদি আমাদের কিছু করার থাকে তবে অবশ্যই তা করবো।

মুক্তিযোদ্ধা ফারুক হত্যা মামলা সম্পর্কে তিনি বলেন, ফারুক হত্যায় চার্জশিট দেয়া হয়েছে। আসামিদের আমরা এখনও গ্রেফতার করতে পারিনি। আদালত থেকে তাদের মালামাল জব্দের আদেশ পাওয়া গেছে। সেই বিষয়ে প্রক্রিয়া চলছে।
আশা করি দ্রুতই তাদেরকে আইনি প্রক্রিয়ায় আনতে পারবো।

মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিপিএস বিভাগের মিলনায়তনে আয়োজিত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো. আলাউদ্দিন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন সিপিএস বিভাগের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম। স্বাগত বক্তব্য রাখবেন এসপিএম উচ্চশিক্ষা মান উন্নয়ন প্রকল্প ও বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ আশরাফুল আলম।

অনুষ্ঠানে `Policing in the 21st Century: Issues and Challenges in Bangladesh’’ শিরোণামে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিভাগের শিক্ষক মোহাম্মদ আশরাফুল আলম, সুব্রত ব্যানার্জী ও মো. বশীর উদ্দীন খান।

এ বিষয়ের উপর আলোচনা করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ও বাংলাদেশ তথ্য কমিশনের সাবেক কমিশনার প্রফেসর ড. সাদেকা হালিম, যুক্তরাষ্ট্রের Kutztown University এর ক্রিমিনাল স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সিপিএস বিভাগের ভিজিটিং ফেলো প্রফেসর ড. মাহ্ফুজুল ইসলাম খন্দকার।

এসময় ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সিপিএস বিভাগের হেকেপ প্রকল্পের ডিএসপিএম সহযোগী অধ্যাপক মুহাম্মদ উমর ফারুক। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পুলিশের ডিআইজি নুরুজ্জামান, র্যা ব-১২ সিপিসি-৩ এর অধিনায়ক সাহাবুদ্দিন খান, টাঙ্গাইল পুলিশ সুপার সালেহ্ মোহাম্মদ তানভীর ও টাঙ্গাইল র্যা ব-১২ কমান্ডার মহিউদ্দিন ফারুকী প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই