মেইন ম্যেনু

আবারও সাকিবদের হারালো রিয়াদরা

বিপিএলে সাকিব আল হাসানের দল রংপুর রাইডার্সের বিরুদ্ধে প্রথমবারের দেখায় ১৩ রানে জিতেছিলো মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের দল বরিশাল বুলস। আজ চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে দ্বিতীয়বারের দেখায় আবারও জিতলো রিয়াদরা।

বৃহস্পতিবার বিপিএলে বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম ম্যাচে সাকিবদের ৬ উইকেটে হারিয়েছে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদরা। ফলে ৬ ম্যাচ খেলে পাঁচটিতে জয় নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে গেলো বরিশাল বুলস। আর সাতটি ম্যাচ খেলে চারটিতে জিতে রংপুর রাইডার্স এখন তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে।

এদিন বরিশাল বুলস দল সাকিবদের দেয়া ১০৫ রানের জয়ের টার্গেটে ব্যাট করতে নামলে ৩.৩ ওভার খেলা হওয়ার বৃষ্টির কারণে খেলা বন্ধ হয়ে যায়। খেলা বন্ধ হওয়ার আগে ১ উইকেট হারিয়ে ১৯ রান করেছিলো বরিশাল বুলস।

পরে খেলা শুরু হলে নতুন করে বরিশালের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয় ৭৫। খেলা ২০ ওভার খেকে কমিয়ে ১৩ ওভারে আনা হয়। বরিশাল বুলস ১২.৩ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে নোঙর করে।

দলের পক্ষে রনি তালুকদার ২৩ ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ২৩* রান করেন। রংপুরের পক্ষে আরাফাত সানি ২টি, সাকিব আল হাসান ১টি ও ওয়াহাব রিয়াজ ১টি করে উইকেট নেন।

বৃষ্টির আগে ইনিংসের তৃতীয় ওভারে এভিন লিউইসকে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলেন ওয়াহাব রিয়াজ। বৃষ্টি থামার পর আঘাত হানেন আরাফাত সানি। মোহাম্মদ নবীর হাতে ক্যাচ বানিয়ে রনি তালুকদারকে সাজঘরে ফেরান তিনি। অষ্টম ওভারের প্রথম বলে মেহেদী মারুফকে সাজঘরে ফেরান সাকিব আল হাসান।১২তম ওভারে নাদিফ চৌধুরীর উইকেটটি নেন আরাফাত সানি।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১০৪ রান করে রংপুর রাইডার্স। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৪ রান করেন জহুরুল ইসলাম। বরিশাল বুলসের পক্ষে আল-আমিন হোসেন ৩টি, মোহাম্মদ সামি ২টি, রায়াদ এমরিত ২টি, তাইজুল ইসলাম ১টি ও সেগুগে প্রসন্ন ১টি করে উইকেট নেন। প্লেয়ার অব দ্য ম্যাচ নির্বাচিত হন বরিশাল বুলসের আল-আমিন হোসেন।






মন্তব্য চালু নেই