মেইন ম্যেনু

‘আমার জন্য কেঁদো না আর্জেন্টিনা’

মেসির পায়েই শিরোপা জলাঞ্জলি দিয়ে দিলো আর্জেন্টিনা। টাইব্রেকারে যদি মেসি প্রথম শটটা ওভাবে বারের ওপর দিয়ে মেরে না দিতেন, তাহলে ইতিহাস ভিন্ন হতেও পারতো। কিন্তু যে ইতিহাস লেখা হয়ে যায়, সেটা আর পরিবর্তন করা যায় না। যাবেও না। অন্য যে কারও চেয়ে এই মিস করাটা বেশি দগ্ধ করছে মেসিকে। সে কারণেই ফাইনাল শেষে কঠিন সিদ্ধান্তটা নিয়েই ফেললেন মেসি। আন্তর্জাতিক ফুটবলকে গুডবাই জানিয়ে দিলেন।

মাত্র ২৯ বছর বয়সে এভাবে অবসর ঘোষণা করে দেবেন মেসি- বিষয়টা যেন কোনভাবেই মেনে নিতে পারছেন না ভক্ত-সমর্থকরা। সবারই দাবি- ফিরে আসুন মেসি। আবারও জাতীয় দলের জার্সি গায়ে মাঠে নামুন। কিন্তু মেসি যেভাবে অবসরের ঘোষণাটা দিয়েছেন, তাতে কোনভাবেই তিনি ফিরে আসবেন কি না সন্দেহ।

টানা তিনটি, মোট চারটি ফাইনাল হেরেছেন মেসি। এত হতাশা কোথায় লুকাবেন তিনি! সে কারণেই বলে ফেললেন, ‘চ্যাম্পিয়ন হওয়াটা আমার জন্য নয়। জাতীয় দলের হয়ে খেলাটা আমার জন্য শেষ। আমি যা পারতাম সবই শেষ করে ফেলেছি। অথচ চ্যাম্পিয়ন হতে পারিনি। এটা আমার জন্য অন্য যে কারও চেয়ে খুব বেশি কষ্টের। সুতরাং, বিদায়টা বলে দেয়ার সময় হয়ে এসেছে। অনেকেই চায়, আমিও চাই অবসর নিয়ে নিতে। সুতরাং, আমার জন্য কেঁদো না আর্জেন্টিনা।’

চারটি ফাইনালের কথা উল্লেখ করে মেসি বলেন, ‘চারটি ফাইনাল খেলেছি। আমি চেষ্টা করেছি। নিজের সর্বোচ্চ দিয়ে চেষ্টা করেছি। অন্য যে কারও চেয়ে আমি বেশি চেয়েছি একটি ট্রফি জিততে। কিন্তু আমি পারিনি জিততে। সুতরাং, আমি মনে করি এটাই শেষ। এরপর আর জাতীয় দলের জার্সি গায়ে তোলার কোন ইচ্ছে নেই।’






মন্তব্য চালু নেই