মেইন ম্যেনু

আমেরিকায় গিয়ে নিঃস্ব হয়ে দেশে ফিরলেন ২৭ বাংলাদেশী

দীর্ঘ কারাভোগের পর যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফিরেছেন অবৈধভাবে অনুপ্রবেশ করা ২৭ বাংলাদেশী।

শরণার্থী ক্যাম্পে তাদের ওপর শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন চালানোর অভিযোগ করেন কয়েকজন, জানান আরও কয়েক হাজার বাংলাদেশী বন্দি আছেন এখনও।

প্রায় চল্লিশ লাখ টাকা খরচ করে ল্যাটিন আমেরিকার দেশ বলিভিয়ায় যান নোয়াখালীর কামাল হোসেন। উন্নত জীবনের আশায় অবৈধভাবে ৮ দেশ পেরিয়ে প্রবেশ করেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে পুলিশের হাতে আটক হন তিনি।

আমেরিকায় অবৈধ অনুপ্রবেশ করা বাংলাদেশী কামাল হোসেন বলেন, ‘বলিভিয়া হয়ে আমি ব্রাজিল গিয়েছিলাম। ব্রাজিল থেকে ভেনেজুয়েলা, কলম্বিয়া। আরও কয়েকবার ঘুরে পৌঁছাই মেক্সিকোতে। মেক্সিকো বর্ডার পাড় হওয়ার সময়ই আটক করা হয় আমাকে ।

কামালের মতো এমন কয়েকশ’ বাংলাদেশী রয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন শরণার্থী ক্যাম্পে। মঙ্গলবার রাতে তাদেরই ২৭ জনকে ফেরত পাঠানো হয়।

দেশা ফেরা মো: শাহজাহান বলেন, ৩৫ লাখ টাকা খরচ করে আমেরিকা গিয়েছিলাম। অথচ মার্কিন আইনজীবীরা আমাদের কাছ থেকে অর্থ নিয়েও কোনো সাহায্য করেনি। প্রত্যেককে বাড়িতে পৌঁছে দিতে সহযোগিতা করেছে বেসরকারি সংস্থা ‘ভালোবাসি বাংলাদেশ’।

ভালোবাসি বাংলাদেশ-এর জাতীয় সমন্বয়কারী মো: আল-আমিন নয়ন বলেন, আমাদেরকে দূতবাস এই কয়েকজন ফিরছে বলে জানায় এবং আমরা কোনো সহযোগিতা করবো কিনা । তাই আমরা তাদের দেশে ফেরার ব্যবস্থা করি। আটক থাকা বাংলাদেশীদের পালাক্রমে দেশে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান যুক্তরাষ্ট্র ফেরত কয়েকজন।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই