মেইন ম্যেনু

আশ্চর্য ঘটনা! রাস্তায় পড়ে আছে কোটি কোটি টাকা, রহস্যটা কি?

আশ্চর্য ঘটনা! রাস্তায় পড়ে আছে কোটি কোটি টাকা, কিন্তু কেউ সেই টাকা ছুঁইছে না। তাহলে রহস্যটা কি? এ ঘটনা দক্ষিণ কোরিয়ার রাজধানী সিউলে। সিউলের প্রাণকেন্দ্র সিউল স্কয়ারে অজ্ঞাত পরিচয় এক নারী অগণিত টাকা রাস্তায় ছুড়ে মেরেছে।

পুরো রাস্তায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে অসংখ্য টাকার নোট। তবে আশ্চর্যজনক বিষয় হচ্ছে, এখন পর্যন্ত সেই নোটগুলোর একটিও ছুঁয়ে দেখেনি কেউ।

দক্ষিণ কোরিয়ার গণমাধ্যম কোরিয়া হেরাল্ডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, রাস্তার ওপর ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা নোটগুলোর দিকে কেউ ফিরেও তাকাচ্ছে না। কিছু পথচারী নোটগুলোর দিকে তাকালেও ছুঁয়ে দেখছে না। তবে শুধু ছবি তোলার জন্য।

সিউলের একটি বাণিজ্যিক এলাকাতে গত সোমবার বিকেল পাঁচটার দিকে ২০ লাখ উন (দক্ষিণ কোরিয়ার মুদ্রা) ছুড়ে ফেলে ৫৬ বছর বয়সী এক নারী। এতে নগরিতে কোনো বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়নি। এ খবর দিয়েছে সিউলভিত্তিক গণমাধ্যমটি।

কোরিয়ার আইন অনুসারে, কোথাও পড়ে থাকা মালিকবিহীন কোনো সম্পদ কেউ তুলে নিলে তাকে চুরির অপরাধে দায়ী করে ব্যবস্থা নেয়া হয়। সিউলের রাস্তায় পড়ে থাকা টাকাগুলো শেষ পর্যন্ত পুলিশকে উদ্ধার করতে হয়।

তবে কেউ যদি ঘোষণা করে তার সম্পদের মালিকানা ছেড়ে দেয় তা কেউ তুলে নিলে কোনো অপরাধ হবে না। নোটগুলো ছুড়ে মারা ওই নারী তার অর্থের মালিকানা ছেড়ে দিয়েছিল। তাই নোটগুলো কেউ তুললেও অপরাধ হতো না। এরপরও কেউই নোটগুলো তুলে নেননি।

পুলিশের এক তদন্তে দেখা গেছে, কয়েকদিন আগে ওই নারী তার ব্যাংক হিসাব থেকে ৪ কোটি ২০ লাখ উন তুলেছিল। উনগুলো দান করে দিতে চেয়েছিলেন তিনি। তবে স্বামী কিংবা সন্তানরা নিয়ে নিতে পারে- এমন শঙ্কায় কাউকে উনগুলো দান করতে ভয় পাচ্ছিলেন।

এ কারণেই দানের উদ্দেশ্যে নোটগুলো তিনি রাস্তায় ছুড়ে মারেন। তবে পরিবারের পক্ষ থেকে ওই নারী কোনো হুমকিতে ছিল না বলে জানিয়েছে সেখানকার পুলিশ।






মন্তব্য চালু নেই