মেইন ম্যেনু

ইউএস-বাংলার প্রথম আন্তর্জাতিক ফ্লাইটের উড্ডয়ন অবতরণ

ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের প্রথম আন্তর্জাতিক ফ্লাইট ইউবিজি-২১১ নিরাপদে অবতরণ করেছে নেপালের ত্রিভুবন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্টে। বিকেল ৫টা ১০ মিনিটে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ৭৬ জন যাত্রী নিয়ে উড্ডয়ন করে উড়োজাহাজটি। ত্রিভুবন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্টে পৌঁছে নেপালের স্থানীয় সময় রাত ৯ টায়।

এর আগে বিকেল ৩ টায় ফ্লাইটটি ছেড়ে গিয়ে ঝড়ো হাওয়ার কবলে পড়ে ত্রিভুবন ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্টে অবতরণের সংকেত না পেয়ে ঢাকায় ফেরত আসে। উক্ত ফ্লাইটে একটি আসনে ছিলেন ইউএস-বাংলার ব্যাবস্থাপনা পরিচালক আব্দুল্লাহ আল মামুন।

সন্ধ্যায় আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, শুধু ইউএস-বাংলা নয় ইতিহাদসহ বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক রুটের এয়ারলাইন্স নেপালে ঝড়ো হাওয়ার কবলে পড়ে সেখানকার বিমানবন্দরে অবতরণ করতে পারে নাই। অবতরণ করতে না পেরে ঢাকায় ফিরে এসেছে।

তিনি আরো বলেন, ‌ রোববার বিকেল ৩টায় ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে নেপালের কাঠমান্ডুর উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিল ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের ড্যাশ-৮ কিউ ৪০০ মডেলের উড়োজাহাজ। নেপাল বিমানবন্দরে পৌঁছার পর সেখানকার খারাপ আবহাওয়ার কারণে বিমানটি অবতরণ করতে পারেনি।

তিনি বলেন, সেখানে বিমানটি বেশ কিছুক্ষণ ঘুরে অবতরণের চেষ্টা করেছিল। তবে ওই বিমানবন্দরের কর্মকর্তারা সবুজ সংকেত না দেওয়ায় ঢাকায় ফিরিয়ে আনা হয়।

নেপালে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের এই প্রথম ফ্লাইটে ৭৬ জন যাত্রী ছিলেন। ইউবিজি-২১২ ফ্লাইটটি কাঠমান্ডু থেকে ৪০ জন যাত্রী নিয়ে স্থানীয় সময় রাত ১১টায় ঢাকায় পৌঁছাবে।






মন্তব্য চালু নেই