মেইন ম্যেনু

ইউরোপের জনপ্রিয় মাদক লাফিং গ্যাস

পৃথিবীর সবচেয়ে জনপ্রিয় মাদক কোনগুল‌ো‌? ‌বিশ্বের ৫০টি দেশে করা গ্লোবাল ড্রাগ সার্ভের এক সমীক্ষায় হেরোইন, সিগারেট, মদ্যপান, গাঁজার পাশাপাশি উঠে এল লাফিং গ্যাসের নামও।‌

দেখা গিয়েছে, জনপ্রিয় নেশার তালিকায় ১৩ নম্বরে রয়েছে এটি। ইউরোপে ৩৮ শতাংশ মানুষই গতবছরে লাফিং গ্যাসের নেশা করেছেন। চেতনানাশক ওষুধ হিসেবে দীর্ঘদিন ধরেই নাইট্রাস অক্সাইড অর্থাৎ লাফিং গ্যাস ব্যবহার করা হচ্ছে। এই গ্যাস প্রাথমিকভাবে হাসির অনুভূতি জাগালেও পরে চেতনা লোপ করতে সাহায্য করে। নেশার অনুভূতিও তৈরি হয়।

আইনি নিষেধাজ্ঞা না থাকায় ইউরোপের বিভিন্ন জায়গায় বাল্বের মতো আকারের কাচের পাত্রে বিক্রি হয় এই বর্ণহীন মিষ্টি গন্ধের গ্যাস। দিন দিন এর চাহিদাও বাড়ছে ব্যাপক। বিশেষত যারা নিয়মিত নাইটক্লাবে যান, তাদের মধ্যে লাফিং গ্যাসের দারুণ জনপ্রিয়তা রয়েছে। এদিকে বেলজিয়ামের পুলিশ জানিয়েছে, বিশৃঙ্খল জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে এবার লাফিং গ্যাস ব্যবহার করার কথা ভাবছে তারা।‌‌‌






মন্তব্য চালু নেই