মেইন ম্যেনু

ঈশ্বরের দেখা পেয়েছি, ১১ দিন পর সমাধি থেকে বেরিয়ে দাবি

ঈশ্বরের দেখা পেতে সাধু-সন্ন্যাসীদের তপস্যা বহুকাল পুরনো রীতি। পাহাড়ের গুহায়, কিংবা জঙ্গলে বছরের পর বছর তপস্যার কথা শোনা যায় অনেকই। এই তপস্যার মধ্যে ঈশ্বরের সান্নিধ্য লাভেরও রয়েছে নানান দর্শন, নানা মতাদর্শ।

যদিও তারপরও অনেক প্রশ্ন থেকে যায় এই দাবি ঘিরে। কিন্তু, বাস্তবে ঈশ্বরের দেখা পেয়েছেন বলে এবার দাবি করলেন উত্তরপ্রদেশের সুভাষ বাবা (এই নামেই তিনি পরিচিত)। শুধু তাই নয়, ঈশ্বরের সাক্ষাৎ পেতে তিনি নাকি ১১ দিন মাটির নীচে সমাধিস্থ ছিলেন!

আগুতা থানা এলাকার বাসিন্দা সুভাষ বাবার দাবি, ১১ দিন ধরে ভারী কোনো খাবার পর্যন্ত স্পর্শ করেননি তিনি। কেবল মিছরি আর জল খেয়ে ছিলেন। এরপর ঈশ্বরও নাকি মুখ ফেরাতে পারেননি তার থেকে। ১১ দিনের মাথায় নাকি তাকে দেখা দেন!

জানা গেছে, ওই থানা এলাকার লুহারলি গ্রামে গত ৭ জুন সমাধিস্থ হন সুভাষ বাবা। সমাধির জন্য ১১ ফিট গর্ত করা হয়েছিল। ১১ দিন পর ১৭ তারিখ গ্রামের লোকেরা সমাধির ঢাকনা খুলে দেখেন সেখান থেকে নিরাপদে বেরিয়ে আসছেন সুভাষ বাবা! যা দেখেশুনে তাজ্জব বনে যান অনেকেই।

ঘটনা জানাজানি হতে ‘আশ্চর্য বাবাকে’ দেখতে মানুষ ভিড় জমিয়েছেন। সমাধিকে ঘিরে ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে কীর্তনগান। বসেছে মেলাও।






মন্তব্য চালু নেই