মেইন ম্যেনু

উজিরপুরের সাতলা বাজারে অতর্কিত ভাবে সন্ত্রাসী হামলা মহিলা সহ আহত ৯

বরিশালের উজিরপুরের সাতলা বাজারে বৃহস্পতিবার রাত সারে ৮টায় ব্যাবসা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ঢুকে অতর্কিত ভাবে হামলা চালিয়ে ১ মহিলা সহ ৯ জনকে আহত করেছে প্রতিপক্ষ চিহ্নিত স্বস সন্ত্রাসীরা। সন্ত্রসী হামলায় আহত ৫জনকে উজিরপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এনে রাত ১১ টায় ভর্তি করা হয়েছে,বাকি ৪ জনকে স্থানিয় ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

উজিরপুর থানা পুলিশ ও হারতা ক্যাম্পের পুলিশ গিয়ে হামলার ঘটনা নিয়ন্ত্রনে আনলেও হামলাকারিদের কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি। পুলিশ,প্রত্যক্ষদর্শি ও হামলায় আহতদের সুত্রে জানা যায় বৃহস্পতিবার রাত ৮ টার দিকে সাতলা বাজারের ই- সেন্টারের সামনে নুরুল হক বিশ্বাসের দর্জির দোকানে স্থানীয় মৃত গাজী বিশ্বাসের ছেলে নান্নু বিশ্বাস, সোনামিয়া, কালাম, মোসারেফ, জাকির, সিরাজ, মাসুদ বিশ্বাস, কালাম বিশ্বাসের ছেলে এস, রহমান বিশ্বাস,কালাই বিশ্বাসের ছেলে মোনাফছের বিশ্বাস, দুলাল বিশ্বাসের ছেলে ছালমান বিশ্বাস,ও মৃত ছেকেন্দার বিশ্বাসের ছেলে দুলাল বিশ্বাস,(পেশায় সকলে কসাই) একত্রিত ভাবে দাও, চাপাটি,চাকু, রড ও গজারির লাঠি নিয়ে নুরুল হকের দর্জিও দোকানে ঢুকে ১ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে এবং ওই দোকান ঘরের ভিটি তাদেরকে দিয়ে দিতে হবে বলে দোকানের মলিক নুরুল হক সহ কর্মচারিদের অতর্কিত ভাবে কোপাতে, পিটাতে, লুটপাট ও ভাংচুর করতে থাকে।

এঘটনা ফিরাতে গিয়ে তাদের হামলায় গুরুতর ভাবে আহত হয় এক মহিলা সহ এনামুল হক,আতিয়ার রহমান,মোতালেব বিশ্বাস,নুরুল হক,রহমান ফকির,নুরুল হক বালী,জালাল বিশ্বাস সহ ৯ জন। ঘন্টাকাল ব্যাপী হামলার ঘটনা চলাকালিন সময় স্থানীয়রা থানা পুলিশকে খবর দিলে রাত সারে ৯ টায় পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

এ সময় পুরো সাতলা বাজারে এক ভয়ংকর ত্রাসের রাজত্বের সৃষ্টি হয়। এ ব্যাপারে উজিরপুর মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক মোঃ নুরুল ইসলাম পিপিএম জানিয়েছেন সাতলা বাজারে হামলার ঘটনা শুনে তাৎক্ষনিক ভাবে উপ-পুলিশ পরিদর্শক মনিরুল ইসলামের নেতৃত্বে পুলিশ ফোর্স পাঠিয়ে আইনশৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করা হয়েছে।আহতদের পক্ষে জনৈক জালাল বিশ্বাস থানায় এজাহার দাখিল করেছেন।






মন্তব্য চালু নেই