মেইন ম্যেনু

উত্তরখন্ডে বর্ষণ, তলিয়ে গেছে দিল্লিও

ভারতের উত্তরখন্ডের বিভিন্ন এলাকায় ভারী বর্ষণের কারনে সৃষ্ট ভূমিধসে চার জনের মৃত্যু হয়েছে। ওই অঞ্চলগুলোতে বেশির ভাগ নদীর পানিই বিপদ সীমাকে অতিক্রম করে প্রবাহিত হচ্ছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।

দিল্লিতে শুক্রবার সারা রাত ধরে চলা বৃষ্টিপাতে বিভিন্ন এলাকা পানিতে তলিয়ে গেছে। সেখানে বৃষ্টিপাতের পরিমান ছিল ৯০ মি.মি.। বৃষ্টির কারনে শহরের বিভিন্ন স্থানের রাস্তা-ঘাটে ভয়াবহ ট্রাফিক জ্যাম দেখা গেছে। নাজাফগর, ধানসা, ছাওলা, নাঙ্গলয়, দিল্লি গেট, আইটিও জাংশন, ঢাউলা কুয়ান এবং নারায়না সড়কে ধীর গতিতে যানবাহন চলাচল করতে দেখা গেছে। জলাবদ্ধতায় আটকে গেছে বিভিন্ন এলাকার যানবাহন। আর এতে সবচেয়ে বেশি দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে রাস্তায় বেরিয়ে পড়া মানুষদেরকে।

এছাড়া এনসিআর এ লেনদেনের জন্য দীর্ঘ সময় ধরে লাইনে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে সাধারন মানুষকে। অনেকেই আবার জলাবদ্ধ রাস্তার ছবি তুলে সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করেছেন।

উত্তরখন্ডের চামোলি, নাইনিটাল, পাওরি, উত্তরকাশি, রুদ্রপ্রয়াগ এবং পিটোরাগরে দু’দিন ধরে ক্রমাগত বৃষ্টিপাত হচ্ছে। বৃষ্টিপাতের কারনে সৃষ্ট ভূমিধসে মাদকোট, পাওরি, ধারচুলা এবং কাপ্পকটে চারজনের মৃত্যু হয়েছে।

হরিদ্দার জেলায় গঙ্গার পানি বিপদ সীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এ কারনে উত্তর প্রদেশে সতর্কতা জারি করা হয়েছে বলে জানা গেছে। এছাড়া রামগঙ্গা, নান্ধুর, কইলাস, কালি-শরদা, কোসি এবং গাওলা নদীর পানি দু’কুলে প্লাবিত হতে দেখা গেছে। এছাড়া শনিবার আরো বৃষ্টিপাত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির আবহাওয়া দপ্তর।






মন্তব্য চালু নেই