মেইন ম্যেনু

একশ বছরের পুরনো বোতলে ভর্তি চিঠি উদ্ধার!

একশ বছরের পুরনো বোতলে ভর্তি বার্তা পাওয়া গেছে জার্মানীর আমরুমের সমুদ্র সৈকতে। ধারণা করা হচ্ছে এটিই পৃথিবীর সবচেয়ে পুরনো বার্তা।

১৯০৪ বা ১৯০৬ খ্রীষ্টাব্দের দিকে উত্তর সাগরে ফেলে দেওয়া বোতলটি এপ্রিলে জার্মানীর আমরুম সৈকতে এক দম্পতি খুঁজে পান।

বোতলটির ভেতরে একটি পোস্টকার্ড পান তারা। এতে অনুরোধ করা হয়, যিনি বোতলটি পাবেন তিনি যেন বার্তাটি যুক্তরাজ্যের মেরিন বায়োলজিক্যাল এ্যাসোসিয়েশনে পাঠিয়ে দেন। তারা সেটাই করেন।

গ্রুপটির মুখপাত্র গাই বেকার শুক্রবার বলেন, ‘আমরা খুবই উত্তেজিত। আমরা আর কোন পোস্টকার্ড পাওয়ার আশা করছিলাম না।’

বেকার বলেন, বোতলটি মেরিন গবেষণার জন্য ব্যবহৃত এক হাজারটি বোতলের অংশ। গবেষণাটি অ্যাসোসিয়শনের এক সময়কার সভাপতি জর্জ পার্কার বিডার করেন। তিনিই এগুলো সমুদ্রে ভাসিয়ে দেন।

গবেষণার অংশ হিসেবে বোতলগুলো সমুদ্রে ভাসানো হয়। প্রত্যেকটি বোতলের মধ্যকার পোস্টকার্ডে লেখা ছিল, কেউ বোতলটি পেয়ে, সেটি কোথায় পেল এবং কখন পেল এসব তথ্য উল্লেখপূর্বক যদি অ্যাসোসিয়শনে পাঠিয়ে দেয় তাহলে তাকে এক শিলিং পুরস্কার দেওয়া হবে।

বেকার বলেন, বেশিরভাগ বোতলই জেলেরা মাছ ধরার সময় খুঁজে পান এবং সেগুলো কয়েক দশক আগে ফেরত দেন।

article-0-185E098600000578-97_634x411

অ্যাসোসিয়েশনটি এখন বিশ্বের সবচেয়ে পুরনো বার্তা প্রাপ্তির রেকর্ড হিসেবে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ড পাওয়ার কথা ভাবছেন।

এ পর্যন্ত আবিষ্কৃত সবচেয়ে প্রাচীন বার্তা আবিষ্কৃত হয় ২০১৩ সালের জুলাইয়ে। ৯৯ বছর ৪৩ দিনের পুরনো বার্তা ছিল ওটি।

তাছাড়া কথামতো, বোতল খুঁজে জমা দেওয়া দম্পতিকে একটা পুরনো শিলিংও পাঠানো হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই