মেইন ম্যেনু

ফিরে দেখাঃ ২৮ এপ্রিল ২০১৫

এক পা এগোবেন, তো ৫ কদম পেছনে ঠেলে দেবে : অনুরাগ কাশ্যাপ

একজন নির্মাতা হিসেবে এক পা এগোনোর চেষ্টা করবেন তো, অন্যরা আপনাকে পাঁচ কদম পেছনে ঠেলে দেবে। একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে ভারতীয় অভিনেত্রী রাধিকা আপ্টে অভিনীত কয়েক সেকেন্ডের একটি নগ্ন দৃশ্য ফাঁস হয়ে যাওয়ার ঘটনায় চলচ্চিত্রটির পরিচালক অনুরাগ কাশ্যাপ এমনটাই প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন।

সত্যি ঘটনা অবলম্বনে তৈরি ২০ মিনিট দৈর্ঘ্যের এই চলচ্চিত্রের ক্ষুব্ধ নির্মাতা ইতিমধ্যেই বিষয়টি নিয়ে মুম্বাই পুলিশের শরণাপন্ন হয়েছেন। রবিবার হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে ঐ দৃশ্যটি। টাইমস অফ ইন্ডিয়া।

অনুরাগ কাশ্যাপ জানান, এই চলচ্চিত্রে অংশ নিয়ে রাধিকা তার সাহস এবং প্রতিভার পরিচয় দিয়েছেন। কিন্তু ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে তিনি (রাধিকা আপ্টে) এখানে নিজেকে অসহায় মনে করছেন উল্লেখ করে অনুরাগ বলেন, “এবং এর জন্য নিজেকেই দায়ী মনে হচ্ছে আমার”।

চলচ্চিত্রের গল্পটি সত্য ঘটনা অবলম্বনে জানিয়ে অনুরাগ বলেন, “এটি তৈরি করা অনেক কষ্টসাধ্য ছিল কারণ, অল্প সময়ের জন্য এই সিনেমায় একটি দৃশ্যে অভিনেত্রীকে কাপড় ওঠাতে হয় এবং তার নিম্নাঙ্গ প্রদর্শন করতে হয়।”

সিনেমার জন্য আংশিক নগ্নতার দৃশ্যটি সত্যিই জরুরি ছিল উল্লেখ করে নির্মাতা আরো বলেন, “দৃশ্যটি যাতে যৌন আবেদনময় না দেখায়, সেজন্য আমাদের অনেক সময় লেগেছে এর শুটিং-এ। কারণ দৃশ্যটি কোনোভাবেই যৌন উত্তেজক ছিল না এবং আমরা সেটা নিশ্চিত করতে যা যা প্রয়োজন- তার সবই করেছি।”

দৃশ্যটির স্পর্শকাতরতা এবং অনাকাঙ্খিত ঘটনা এড়াতে চলচ্চিত্রটির পরিচালক নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থাও গ্রহণ করেছিলেন। তিনি জানান, “এই দৃশ্যের জন্য শুটিং ক্রুর সবাই ছিলেন নারী। পোস্ট প্রোডাকশনেও ছিলেন নারীরা। পোস্ট প্রোডাকশনের প্রতিটি ধাপে দৃশ্যটি পাঠানোর আগে হয় এটিকে খালি রাখা হতো, অথবা দৃশ্যটিকে আবছা করে দেওয়া হতো। আর তাই অনেকে জানতেনই না যে, এরকম একটি দৃশ্য চলচ্চিত্রটিতে আছে। তাছাড়া,যেহেতু এটি ভারতীয় সিনেমা, সবাই ধরে নিয়েছিলেন, দৃশ্যটি আবছাই দেখানো হবে। সবদিক দেখে শুনে একমাস আগে ফিল্মটি নিউ ইয়র্কে পাঠানো হয়। আর এখন হঠাৎ করে কোত্থেকে যেন এই দৃশ্যটি ফাঁস হয়ে গেল।”

এরকম একটি দৃশ্যে অভিনয়ের জন্য কাউকে খুঁজে বের করাটা মোটেও সহজ ছিল না জানিয়ে অনুরাগ আরও বলেন, “রাধিকা নিজে এই দৃশ্য নিয়ে গর্বিত ছিলেন। তিনি (রাধিকা আপ্টে) এখানে নিজেকে অসহায় মনে করছেন এবং এর জন্য নিজেকেই দায়ী মনে হচ্ছে আমার।”

অনুরাগ আক্ষেপ করে বলেন, “আপনি যখন কোনো কারণ ছাড়াই এরকম একটি ভিডিও ছেড়ে দেবেন, লোকে অবশ্যই এটা নিয়ে হাসাহাসি করবে। আপনি একজন নির্মাতা হিসেবে এক পা এগোনোর চেষ্টা করবেন তো, অন্যরা আপনাকে পাঁচ কদম পেছনে ঠেলে দেবে।”

অনুরাগ জানান, এরমধ্যেই পুলিশ বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু করেছে।

প্রসঙ্গত, বেশ কিছুদিন আগে এক সিনেমায় অভিনয়ের প্রয়োজনে নগ্ন হবেন বলেন জানিয়েছিলেন রাধিকা। আর গত রোববার ফাঁস হওয়া দৃশ্যটি ছিল এই সিনেমার।

অনুরাগ ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, “এই সিনেমাটি শুধু বিদেশেই মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু ভারতে ছবিগুলো ছড়িয়ে পড়ায় আমি খুবই দুঃখিত। সেই সঙ্গে রাধিকার কাছে লজ্জিতও।”

জানা গেছে, বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ছয়জন নির্মাতা বিশেষ স্বল্পদৈর্ঘ্য ছবিটিতে পরিচালক হিসেবে কাজ করেছেন। ভারতের হয়ে এ কাজটি পান অনুরাগ কাশ্যাপ। আর এ সিনেমাতেই কাজ করছিলেন রাধিকা। এটি কেবল আন্তর্জাতিক বাজারেই মুক্তির কথা রয়েছে।

উল্লেখ্য, রাধিকা-অনুরাগ জুটি নতুন নয়। এ অভিনেত্রী এর আগে অনুরাগের প্রতিষ্ঠান ফ্যান্টম ফিল্মস প্রযোজিত ‘হান্টার’ এবং ‘বদলাপুর’ ছবিতে দেখা গেছে অভিনয় করেছিলেন।






মন্তব্য চালু নেই