মেইন ম্যেনু

এক বছরে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন ৮৬৪২ যাত্রী

গত এক বছরে বাংলাদেশে সাড়ে ৬ হাজরেরও বেশি ছোট-বড় সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ৮ হাজার ৬৪২ যাত্রী। হাত-পাসহ অন্যান্য অঙ্গ হারিয়ে পঙ্গুত্ব বরণ করেছেন ১ হাজার ৩শ’র বেশি মানুষ।

বাংলাদেশ যাত্রীকল্যাণ সমিতি শনিবার জাতীয় প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশের সড়ক দুর্ঘটনার উপর একটি পর্যবেক্ষণ প্রতিবেদন প্রকাশ করে। তাতে এসব তথ্য দেয়া হয়। ২০১৫ সালের জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশের সব ধরনের সড়ক দুর্ঘটনা পর্যবেক্ষণ করে এ প্রতিবেদনটি তৈরি করেছে সংগঠনটি।

সমিতির পক্ষে প্রতিবেদন পড়ে শোনান মহাসচিব মো. মোজাম্মেল হক চৌধুরী।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৫’র জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত ১২ মাসে সারাদেশে ৬ হাজার ৫৮১টি ছোট-বড় সড়ক দুর্ঘটনা সংঘটিত হয়েছে। এতে সর্বমোট ৩০ হাজার ৪৯৭ জন যাত্রী, চালক ও পরিবহন শ্রমিক দুর্ঘটনার শিকার হয়েছেন। এসব দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন ৮ হাজার ৬৪২ জন। আহত হয়েছেন ২১ হাজার ৮৫৫ জন। এর মধ্যে হাত-পা বা অন্যান্য অঙ্গ হানির কারণে পঙ্গু হয়েছেন ১ হাজার ৩০৫ জন।

এসময়ে ১ হাজার ১শ ৮৫টি বাস, ১ হাজার ৬৫৬টি ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যান, ৮শ ৭২টি হিউম্যান হলার ৮শ’ ৫২টি জিপ-কার ও মাইক্রোবাস, ১ হাজার ৬৭৮টি অটোরিক্শা, ১ হাজার ৭৭১টি মোটর সাইকেল, ১ হাজার ৭১টি ব্যাটারি চালিত রিক্শা, ১ হাজার ৩৩টি নসিমন-করিমন দুর্ঘটনার কবলে পড়ে।

১ হাজার ৮০জন ছাত্র-ছাত্রী, ৩০৫জন শিক্ষক, ১৩৩ সাংবাদিক, ১০৯ পুলিশ-সেনা, বিজিবি ও আনসার সদস্য, ৮০১ জন বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী, ২ হাজার ২৪১জন পথাচারি, ২৬১ জন সরকারী কর্মকর্তা কর্মচারি, ১ হাজার ৬৭৭জন নারী এবং ১ হাজার ১২২জন শিশু এসব দুর্ঘটনার শিকার হয়।






মন্তব্য চালু নেই