মেইন ম্যেনু

এদেশে এখন অবাধে লুটপাট চলছে : এরশাদ

সেলিম রেজা, বিশেষ প্রতিনিধি, (মানিকগঞ্জ) : জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হোসেইন মোহাম্মদ এরশাদ শনিবার দুপুরে জেলা জাতীয় পার্টির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলেনে প্রধান অতিথীর বক্তব্য রাখেন। এসময় তিনি বলেন, এদেশে এখন অবাধে লুটপাট চলছে। আর এই লুটপাটের অর্থ দেশের সাধারণ মানুষের অর্থ। তিনি আরও বলেন জাতীয় পার্টির শাসন চলাকালীন দেশে কখনো কোন লুটপাট হয়নি। বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে ৮০০ কোটি টাকা চুরি হয়েছে, এমন কী জনতা সোনালী কোন ব্যাংকই বাদ নেই।

জাতীয় পাার্টির জেলা সভাপতি এসএম আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে জেলা পরিষদে অন্যান্যদের সাথে পার্টির কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদের, মহাচিব রুহুল আমি হাওলাদার, যুগ্ম মহাসচিব গোলাম মোহাম্মদ রাজু, সাংগাঠনিক সম্পাদক জহিরুল আলম রুবেল, কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক সুলতান মাহমুদ, জাতীয় ছাত্রসমাজ কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান সহ আরও অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

এসময় তিনি আরও বলেন যে, দেশের বর্তমান ইউপি নির্বাচন একটি প্রহসনের নির্বাচন। আর এ নির্বাচন কোন গণতান্ত্রিক পদ্ধতির নির্বাচন নয়। এ নির্বাচন দেশের মানুষের কাছে গ্রহণযোগ্য নয়। এতে করে সরকার তার ভাবমূর্তি হারাচ্ছে এবং আওয়ামী লীগ তাদের গ্রহণযোগ্যতা হারাচ্ছে। বর্তামান নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থীদের স্লোগান হয় এমন “আমার ভোট আমি দেব, তোমার ভোটও আমি দেব”।

আবার তিনি বিএনপি কে লক্ষ করে বলেন যে, এখন আর মানুষের কাছে এই দলটির কোন গ্রহণযোগ্যতা নেই। তারা তাদের তিন মাসের আন্দোলনে অসংখ্য মানুষকে পুঁড়িয়ে মেরেছে। একই সাথে মা, মেয়েকে পুঁড়িয়েও হত্যা করেছে তারা। এসব কারণে বিএনপি দলটির প্রতি মানুষের আস্থা এখন কমে যাচ্ছে। মানুষের কাছ থেকে তারা বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে।

বর্তমানের আলোচিত বিষয় কলেজছাত্রী তনু হত্যা নিয়ে জাপার চেয়ারম্যান আরও বলেন, তনুকে হত্যা করার বিচার আমাদের দেশে হবে না। সরকার বলতেছে তনুকে ধর্ষণ করা হয়নি, তাহলে কেনোই বা তনুকে ধর্ষণ করা হল ???
শান্তির যুগ শেষ হয়েছে, তনুকে হত্যার তদন্ত্র রিপোর্ট কখনো প্রকাশ করা হবে না। এ তনুর মায়ের চোখের পানিতে আল্লাহর আরশ কেঁপে উঠবে।

অতঃপর সম্মেলেনে তিনি সাবেক সাংসদ এসএম আব্দুল মান্নন’কে সবাপতি ও হাসান সাঈদ’কে সাধারণ সমম্পাদকের দায়িত্বে মানিকগঞ্জ জেলা কমিটি ঘোষণা করেন।






মন্তব্য চালু নেই