মেইন ম্যেনু

এবার স্ত্রীর সার্টিফিকেট পেলেন আশরাফুল

২২ গজের পিচে নয়, ব্যক্তিজীবনে নতুন ইনিংস শুরু করেছেন মোহাম্মদ আশরাফুল। শুক্রবার তিনি গাঁটছড়া বাঁধেন আনিকা তাসনিম অর্চির সঙ্গে। শনিবার অনুষ্ঠিত হয় জমকালো বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান। যেখানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ দলের সাবেক ক্রিকেটারসহ বিশিষ্টজনেরা।

বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ দলের প্রাক্তন এই অধিনায়ক সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন, ‘সবার দোয়াতেই আমি এখনো ভালো আছি। নতুন জীবনের শুরুতে সবার কাছেই দোয়া চাই যেন সারাটা জীবন সৎ মানুষ ও ভালো মানুষ হিসেবে কাটাতে পারি।’

আশরাফুলের নতুন ইনিংসের সঙ্গী অর্চির মুখে শোনা গেল তারকা ক্রিকেটারের প্রশংসা, ‘ও খুবই ভালো মনের মানুষ। এর বাইরে আর কিছু বলতে পারব না।’

চলতি বছরের জুলাইয়ের মাঝামাঝিতে দুই পরিবারের সদস্যদের উপস্থিতিতে আংটি বদল হয় তাদের অর্চি ও আশরাফুলের। অর্চি বর্তমানে পড়ালেখা করছেন। অর্চির বাবা পেশায় একজন ব্যবসায়ী। তাদের গ্রামের বাড়ি কিশোরগঞ্জের ভৈরবে। তবে ঢাকার এলিফ্যান্ট রোডে বসবাস করেন তারা। দুই ভাই-বোনের মধ্যে অর্চি বড়।

২০০১ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেকের পর মোট ৬১ টেস্ট ও ১৭৭টি ওয়ানডে খেলেছেন মোহাম্মদ আশরাফুল। টেস্টে তার সংগ্রহ ২৭৩৭ রান। এর মধ্যে রয়েছে ৬টি সেঞ্চুরি ও ৮টি হাফ সেঞ্চুরি। অন্যদিকে, ওয়ানডেতে তার মোট রান ৩৪৬৮। এর মধ্যে রয়েছে ৩টি সেঞ্চুরি ও ২০টি হাফ সেঞ্চুরি।

২০১৩ সালে বিপিএলে স্পট ফিক্সিংয়ের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বর্তমানে ছয় বছরের শাস্তি ভোগ করছেন তিনি। ২২ গজের পিচে ইনিংস খেলতে না পারলেও ব্যক্তিগত জীবনে ইনিংস শুরু হয়েছে তার। নতুন এই ইনিংস দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতর হোক, তেমনটাই প্রত্যাশা আশরাফুলের ভক্ত-সমর্থকদের।






মন্তব্য চালু নেই