মেইন ম্যেনু

‘এসএ গেমসে দুর্নীতির কারণে বাংলাদেশের ভরাডুবি’

ক্রীড়াঙ্গনে সঠিক ক্রীড়া নীতি ও সুষ্ঠু পরিকল্পনা না থাকার সুযোগে দুর্নীতি, স্বজনপ্রীতি ও ক্ষমতার অপব্যবহারের কারণেই সাউথ এশিয়ান গেমসে বাংলাদেশ টিমের ভরাডুবি হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন সেভ দ্য স্পোর্টসের সভাপতি জাকারিয়া পিন্টু।

সোমবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে সেভ দ্য স্পোর্টস আয়োজিত সদ্য সমাপ্ত সাউথ এসিয়ান গেমসে (এসএ) বাংলাদেশের ভরাডুবি শীর্ষক এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

জাকারিয়া পিন্টু বলেন, ‘২২টি ডিসিপ্লিনে বাংলাদেশ অলিম্পিক এ্যসোসিয়েশন টিম প্রেরন করেছিলো। যেখানে খেলোয়ার কোচ-কাম ম্যানেজার ও বিওএ, ক্রীড়া মন্ত্রনালয়, ক্রীড়া পরিষদ, ফেডারেশনের কর্মকর্তা এবং তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে সাড়ে ৬শত জনের মতো মানুষ এই ভ্রমনে গেছেন। যার খরচ প্রায় ২৫ কোটি টাকা।’

তিনি বলেন, ‘এই বহরের অর্জন ৪টি স্বর্ণ, ১৫টি রোপ্য ও ৫৬টি ব্রোঞ্চ। অন্যদিকে আফগানিস্থানের মতো দেশ অনেক কম ডিসিপ্লিনে অংশ নিয়ে জেতে ৭টি স্বর্ণ। এটা আমাদের জন্য লজ্জা। এরপরও বাংলাদেশ অলিম্পিক এ্যাসোসিয়েশন (বিওএএস) এই ব্যার্থতার দায়ভার নিতে রাজি নয়।’

জাকারিয়া পিন্টু আরও বলেন, বাংলাদেশ অলিম্পিক এ্যাসোসিয়েশন (বিওএএস) এর মহাসচিব এই খেলায় অংশগ্রহন করতে যাওয়ার আগে সংবাদ সম্মেলনে করে বলেছিলেন ‘১১টি স্বর্ণ জয় করবে লাল সবুজের ক্রীড়াবিদরা।’ সেই আশ্বাস মিথ্যে পরিনত হয়েছে।

সঠিক নেতৃত্বের অভাবেই কাবাডি, সাইক্লিং, টেনিস, আরচারি, এ্যথেলটিক্স, ফুটবলসহ প্রতিটি খেলাতেই বাংলাদেশ দলের ভরাডুবি হয়েছে বলেও সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেছে সংগঠনটি।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সেভ দ্য স্পোর্টসের কো-চেয়ারম্যান খায়রুল কবির খোকন, মহাসচিব দিলদার হাসান, সহ-সভাপতি শাহিদুল ইসলাম ভুঁইয়া, দুই খেলোয়ার আবুবকর সিদ্দিক ও মোতাহার প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই