মেইন ম্যেনু

এসপি বাবুল আক্তারকে নিয়ে যা বলেছেন তার শ্বশুর

পুলিশ সুপার (এসপি) বাবুল আক্তারকে রাজধানীর খিলগাঁওয়ে তার শ্বশুরবাড়ি থেকে নিয়ে যাওয়ার বিষয়ে তার শ্বশুর মোশাররফ হোসেন জানিয়েছিলেন, আইজিপি স্যার ডেকেছেন বলে শুক্রবার রাতে তার বাসা থেকে বাবুল আক্তারকে নিয়ে যায় পুলিশ।

তিনি জানান, শুক্রবার পুলিশের ২৪তম বিসিএস ফোরামের ইফতার পার্টিতে গিয়েছিলেন বাবুল আক্তার। পরে রাত সাড়ে ১০টার দিকে আইজিপির সঙ্গে দেখা করে আসেন বাবুল।

মোশাররফ জানান, পরে বাবুল সন্তানদের নিয়ে তার খিলগাঁওয়ের বাসায় ছিলেন। রাত ১টার দিকে খিলগাঁও থানার ওসি মাইনুল হোসেন ও ডিএমপির মতিঝিল

জোনের উপ-কমিশনার আনোয়ার হোসেন ওই বাসায় গিয়ে আইজিপি স্যার ডেকেছেন এ কথা বলে বাবুল আক্তারকে নিয়ে যান।

এরপর থেকে বাবুল আক্তারের সঙ্গে তার কোনো যোগাযোগ হচ্ছিল না বলে জানান তার শ্বশুর।

এদিকে চট্টগ্রামে আলোচিত মাহমুদা খানম মিতু হত্যাকাণ্ডে তার স্বামী এসপি বাবুল আক্তারকে গভীর রাতে শ্বশুরবাড়ি থেকে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের পর আজ ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ। শনিবার বিকেলে গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবর থেকে এ তথ্য জানা যায়।

বাবুল আক্তার বলেন, আমাকে কেউ গ্রেপ্তার করেনি। আমি যেহেতু মামলার বাদী, তাই এ মামলার তদন্ত সংশ্লিষ্ট নানা বিষয়ে আলোচনার জন্য আমাকে ডাকা হয়েছিল।

এদিকে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার ইকবাল বাহার বলেছেন, বাবুল আক্তার যেহেতু মামলার বাদী, তাই মামলা-সংক্রান্ত বিষয়ে জানার জন্যই তাকে ডাকা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, গত ৫ জুন নগরীর জিইসির মোড় এলাকায় ছেলেকে স্কুল বাসে তুলে দিতে গিয়ে দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাত ও গুলিতে খুন হন এসপি বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু।

এ ঘটনার পরদিন পাঁচলাইশ থানায় বাবুল আক্তার বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।






মন্তব্য চালু নেই