মেইন ম্যেনু

কক্সবাজারে ৬২০ পরিবারে ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ এর জরুরী ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ

সাম্প্রতিকালে উপকুলীয় জেলা কক্সবাজারের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া সাইক্লোন রোয়ান’র আঘাতে প্রায় ৩শ বাড়িঘর বিধ্বস্ত সহ ৩০টি গ্রাম জোয়ারের পানিতে তলিয়ে গেছে। আহতও হয়েছে অনেকে।

রোয়ানু’তে ক্ষতিগ্রস্ত ৬২০ পরিবারে জরুরী ত্রাণ সামগ্র্রী বিতরণ করেছেন ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ।

২ দিনের ত্রাণ সামগ্র্রী বিতরণ কার্যক্রম কক্সবাজার পৌরসভা, সদর উপজেলা ও মহেশখালী উপজেলায় সম্পন্ন করা হয়। গত ১৮ জুন দুপুরে কক্সবাজার ডায়াবেটিক হাসপাতালে পৌরসভার ক্ষতিগ্রস্ত ১৩০ পরিবারে ত্রাণ বিতরণ করা হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন-ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ বান্দরবান এডিপি’র টিম লিডার শ্রাবন চাকমা, কক্সবাজারস্থ এডিপি ম্যানেজার রোনাল্ড প্রবীর চিসিক, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনার স্পেশালিষ্ট আসাদুজ্জামান ও কক্সবাজার ডায়েবেটিক হাসপাতালের প্রশাসনিক কর্মকর্তা সুব্রত সেন গুপ্তসহ অন্যান্য কর্মকর্তা এবং কর্মচারীবৃন্দ।

এদিকে একই দিন সকালে মহেশখালীর ছোট মহেশখালী ইউনিয়নে ক্ষতিগ্রস্থ ১৬০ পরিবারে ত্রাণ বিতরণ করা হয়েছে। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ত্রাণ বিতরণ করেন ইউপি চেয়ারম্যান জিহাদ বিন আলী।

অপরদিকে গত ১৭ জুন সকালে ত্রাণ বিতরণ করা হয় কক্সবাজার সদরের চৌফলদন্ডি ইউনিয়নের ১৮০ পরিবারে ও পোকখালী ইউনিয়নে ক্ষতিগ্রস্থ ১৫০ পরিবারে। ত্রাণ বিতরণকালে চৌফলদন্ডিতে কক্সবাজার সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম প্রধান অতিথি হিসেব উপস্থিত থেকে এসব ত্রাণ সামগ্র্রী বিতরণ করেন।

উল্লেখ্য, বিতরণকৃত ত্রানের মধ্যে প্রতি পরিবারে ৩০ কেজি চাল, ৬ কেজি মশুর ডাল, ২ কেজি লবণ, ৪ লিটার সয়াবিন তেল, ২ কেজি চিনি, ৬ কেজি আলু ও ২ কেজি সুজি রয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই