মেইন ম্যেনু

কঠিন রোগ সারাতে চালতার কার্যকরী গুণ

চালতা আমাদের কাছে অতিপরিচিত একটি ফল। বিশেষ করে এর পরিচিতি মজাদার আচারের গুণে। গাছটি দেখতে সুন্দর বলে উদ্যান কিংবা বাসা-বাড়িতে শোভাবর্ধক হিসেবে লাগানো হয়। চালতা গাছ বাংলাদেশসহ ভারত, শ্রীলংকা, চীন, ভিয়েতনাম, থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়াসহ অন্যান্য দেশেও জন্মে। চালতা টক জাতীয় ফল। পাকা অবস্থায় আচার, ডাল কিংবা অন্যান্য সবজি ও মাংসের সঙ্গে রান্না করে খাওয়া হয়। চালতা দামে সস্তা হলেও পুষ্টিগুণে ভরপুর। এতে প্রচুর ক্যালরি, প্রোটিন, খাদ্যআঁশ, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস এবং হজম বাড়াতে অ্যাসকরোবিক অ্যাসিড রয়েছে। আসুন জেনে নেয়া যাক কঠিন রোগ সারাতে এর কার্যকারিতা সম্পর্কে।

– চালতা হজম শক্তি বৃদ্ধিতে সহায়তা করে। ডায়রিয়া ও বদহজমে চালতা খেলে দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠা সম্ভব।

– চালতায় থাকা উচ্চ মাত্রার অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট জরায়ু ও স্তন ক্যানসার প্রতিরোধে সাহায্য করে।

– অন্ত্রে বাসা বাঁধা কৃমির বিরুদ্ধে লড়াই করতে এ এক অসাধারণ ফল।

– পাকস্থলীতে যাদের আলসার আছে, তাদের জন্য দাওয়াই হতে পারে চালতা।

– স্কার্ভি (ভিটামিন সি এর অভাবজনিত একটি রোগ) থেকে সুরক্ষা পেতেও চালতা খেতে পারেন।

– কুসুম গরম পানিতে চালতার রস আর একটু চিনি মিশিয়ে খেলে রক্ত পরিষ্কার হয়।

– গলা ব্যথা, বুকে কফ জমা, সর্দি প্রতিরোধে চালতার জুড়ি নেই।

– হৃদযন্ত্র এবং যকৃৎ ভালো রাখার প্রয়োজনীয় সব উপাদান আছে চালতায়।

– এই ফল হাড়ের সংযোগস্থলের ব্যথা কমাতেও খেতে পারেন।

– কানের যেকোনো সমস্যায়ও চালতা ভালো উপকার দেয়।

– নিয়মিত চালতা খেলে কিডনি সুস্থ রাখার সঙ্গে রোগব্যাধি দুর করে।

সতর্কতা: অতিরিক্ত মাত্রায় চালতা খেলে অ্যাসিডিটি হতে পারে।



(পরের সংবাদ) »



মন্তব্য চালু নেই