মেইন ম্যেনু

কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে রবীন্দ্র জয়ন্তী উদ্যাপিত

মোঃ ওয়াহিদুল ইসলাম, বিশ্ববিদ্যালয় সংবাদদাতা : বিশ্ব কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৫তম জয়ন্তী উদ্যাপন উপলক্ষ্যে আজ ৮ মে ২০১৬ তারিখ রবিবার জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের গাহি সাম্যের গান মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে আলোচনা করেন প্রাবন্ধিক, গবেষক ও শিক্ষাবিদ প্রফেসর ড. হায়াৎ মামুদ। অনুষ্ঠানে সভাপতি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহীত উল আলম।

তিনি বলেন, ‘রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের গান বা কবিতা শুনে, প্রবন্ধ বা গল্প পড়ে তার ভক্ত হতে হবে এমন নয়। তিনি মনের অজান্তেই আমাদের হৃদয়ে আছেন। বাতাস যেমন সবজায়গায় বিচরণ করে ঠিক তেমনি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের বিচরণও সবজায়গায়।

আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় ট্রেজারার প্রফেসর এ এম এম শামসুর রহমান, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মো: হাবিবুর রহমান, পরিচালক (ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা) প্রফেসর ড. মো: নজরুল ইসলাম, পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) প্রফেসর ড. সুব্রত কুমার দে, পরিচালক (গবেষণা) প্রফেসর ড. বিজয় ভূষণ দাস, রেজিস্ট্রার মো: আমিনুল ইসলাম এবং গ্রন্থাগারিক মো: ফজলুল কাদের চৌধুরী।

আলোচনা সভার পরেই শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের শুরুতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীত বিভাগের পরিবেশনায় সঙ্গীত পরিবেশিত হয়। অতিথি শিল্পী সামিউন সুলতানা’র পরিচালনায় রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর রচিত নৃত্যনাট্য ‘চিত্রাঙ্গদা’ পরিবেশিত হয়। থিয়েটার এন্ড পারফরমেন্স স্টাডিজ বিভাগের প্রভাষক নুসরাত শারমিন তানিয়ার নির্দেশনায় রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর রচিত নাটক ‘রক্তকরবী’ পরিবেশিত হয়। ফিল্ম এন্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগ কর্তৃক চলচ্চিত্র পরিবেশনের মধ্য দিয়ে শেষ হয় দিনব্যাপী রবীন্দ্র জয়ন্তীর আয়োজন।

এর আগে সকালে থিয়েটার এন্ড পারফরমেন্স স্টাডিজ বিভাগের স্টুডিও থিয়েটার হলে এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।






মন্তব্য চালু নেই