মেইন ম্যেনু

কম খরচে প্রেম করার সহজ উপায়!

যেদিন থেকে প্রেমে পরেছেন সেদিন থেকে পকেটের সব টাকা কোথায় যেন চলে যাচ্ছে। বুঝতেই পারছেন না আপনি কিভাবে আপনার ভরা মানিব্যাগটার স্বাস্থ্য এতো খারাপ হয়ে গেলো। বন্ধুরা ঠিকই বলতো! প্রেম করা মানেই মানিব্যাগের অবস্থা খারাপ থাকা। কিন্তু কি আর করা!

মানি ব্যাগের কথা চিন্তা করে তো আর ভালোবাসার মানুষটিকে হারানো যায়না। তাই নিজেরই হতে হবে আরেকটু হিসেবি।

প্রেমে পড়লে কম বেশি সব ছেলেরাই অভিযোগ করে থাকে তাদের অনেক বেশি খরচ হচ্ছে। সীমিত হাত খরচে হিম সিম খেতে হয় অনেকেরই। যারা নিজেরা আয় করেন তাঁরাও আয়ের সাথে ব্যয়ের হিসেব মিলাতে গিয়ে বেশ বিপদে পড়েন। এমন না যে মেয়েরা খরচ করেন না। আজকাল অনেক মেয়েই ডেটিং এর খরচ বহন করেন। তবে সাধারণত ডেটিং এর খরচ দিয়ে থাকেন পুরুষেরাই।

আপনার ভালোবাসার মানুষটির সাথে বন্ধুদের পরিচয় করিয়ে দিন। এরপর বন্ধুদের আড্ডায় তাকে নিয়ে যান মাঝে মাঝেই। বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডায় সময় কাটালে আলাদা ভাবে অতিরিক্ত খরচ হওয়ার ঝুঁকি থাকে না। খরচ কম হয় বলে পকেটের জন্য বেশ সস্তিদায়ক একটি উপায় এটি।

আমাদের দেশের পথের ধারে নানান রকম মজার খাবার পাওয়া যায়, ফুচকা, ভাপা পিঠা, চিতই, ডিম পিঠা, ভেলপুরি, চানাচুর মাখা, মুড়ি ভর্তা, ভুট্টা ইত্যাদি নানান রকম মজাদার ও আকর্ষনীয় খাবার পাওয়া যায় পথের ধারে। ক্ষুধা লাগলে প্রেমিকাকে নিয়ে পথের ধারের এসব মজাদার খাবার খেতে পারেন। খুব কম খরচেই মজার মজার খাবারে পেট পুজো হয়ে যাবে। ফলে পকেটের উপরও খুব বেশি চাপ যাবে না।

প্রেমিকাকে নিয়ে সময় কাটানোর জন্য পার্কে বা লেকে চলে যান। পার্ক বা লেকে বসার জন্য সাধারণত অনেক জায়গা থাকে। বসে সময় কাটানোর জন্য ফাস্ট ফুডে বা চাইনিজে যেতে হয়না বলে পকেটের টাকা বেঁচে যায়। পার্কের সুন্দর গাছপালা ঘেরা পরিবেশে দুজন মিলে কথা বলতে বলতে অনায়েসে অনেকগুলো সময় কাটিয়ে দিতে পারবেন।

টিএসসি কিংবা শাহাবাগের চায়ের দোকান গুলোতে গিয়েছেন? ঘন্টার পর ঘন্টা আড্ডা দিয়ে কাটিয়ে দেয়া যায় সেখানে। একদমই একঘেয়ে লাগে না দীর্ঘ সময় ধরে এসব যায়গায় বসে সময় কাটাতে।

প্রেমিকাকে নিয়ে সময় কাটানোর জন্য বেছে নিতে পারেন চায়ের দোকান গুলোকে। এই শীতে গরম ধোয়া ওঠা চায়ের কাপে চুমুক দিতে দিতে মনের অনেক কথাই বলে ফেলতে পারবেন আপনার প্রিয় মানুষটিকে। সেই সঙ্গে পকেটের উপরও চাপ পড়বে না বেশি একটা।

ডেটিং-এর সময় পকেটে যত বেশি টাকা রাখবেন তত বেশি খরচ হবে। কোনো ভাবেই আপনি সেই খরচ নিয়ন্ত্রন করতে পারবেন না। ফলে আপনার মানিব্যাগ খুব দ্রুত খালি হয়ে যাবে। পকেটে টাকা থাকলেই খরচ করার ইচ্ছে থাকে। টাকা না থাকলে খরচ করার ইচ্ছে থাকলেও উপায় থাকে না। তাই পকেটের টাকাগুলো রক্ষা পায়। এছাড়াও ডেটিং-এ গেলে ক্রেডিট কার্ড, ডেবিট কার্ড কিংবা ভিসা কার্ড রাখবেন না সঙ্গে। তাহলে পকেট খালি থাকলেও কার্ড দিয়ে ডাকা তুলে খরচ করতে ইচ্ছে করবে। তাই এগুলো সঙ্গে না রাখাই বুদ্ধিমানের কাজ।






মন্তব্য চালু নেই