মেইন ম্যেনু

করপোরেট কর ১০ শতাংশে নামাতে চায় বিকেএমইএ

আন্তর্জাতিক বাজারে তৈরি পোশাকখাতে নাজুক অবস্থা থেকে ঘুরে দাড়াঁতে করপোরেট কর ৩৫ শতাংশ থেকে কমিয়ে ১০ শতাংশ করার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ নিট ওয়্যার ম্যানুফ্যাকচারার্স অ্যান্ড এক্সপোটার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিকেএমইএ)। একই সঙ্গে সংস্থাটি রপ্তানির ওপর সরকারের দেয়া নগদ সহায়তা প্রদানের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংক নিয়োজিত অডিট সিস্টেম এবং স্থানীয় ও রাজস্ব অধিদপ্তরের অডিট হয়রানি বন্ধের দাবিও তুলে ধরেছে।

মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সম্মেলন কক্ষে ২০১৬-১৭ অর্থ বছরের প্রাক-বাজেট আলোচনায় সংগঠনটির ভাইস প্রেসিডেন্ট ফজলুল হক এ দাবি তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের নিট শিল্পের সুরক্ষায় এবং বৈশ্বিক প্রতিযোগিতায় সক্ষমতা অর্জনে সরকার নগদ সহায়তা প্রদান করে। কিন্তু বাংলাদেশ ব্যাংকের নিয়োজিত অডিট প্রতিষ্ঠান এ সহায়তা প্রদানে অডিটের নামে কালক্ষেপন করে থাকে। এছাড়া বিভিন্ন অডিট ফার্ম এবং স্থানীয় ও রাজস্ব অধিদপ্তরের অডিট কর্মকর্তাগণ সারকুলারসমূহের অপব্যাখ্যা করে থাকে। ফলে শিল্প মালিকরা তাদের ন্যায্য পাওনা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘রপ্তানিমুখি তৈরি পোশাক শিল্পের অডিট কার্যক্রম ২ বছর অন্তর করা এবং অডিট সহায়ক প্রয়োজনীয় দলিলাদি দাখিলের সময়সীমা ৩ মাসের পরিবর্তে ৬ মাস করা ও বিশেষ ক্ষেত্রে আবেদনের অতিরিক্ত সময় গ্রহণের সুযোগ দেয়া প্রয়োজন।’

এছাড়া সংগঠনটির পক্ষ থেকে প্রাক-বাজেট আলোচনায় উত্থাপিত দাবিগুলোর মধ্যে- রপ্তানিতে উৎসে কর শুধুমাত্র কাটিং অ্যান্ড মেকিং (সিএম) .৬০ শতাংশ করা, অগ্নি-নিরাপত্তা সংক্রান্ত সকল যন্ত্রপাতি ও যন্ত্রাংশ আমদানি করার ক্ষেত্রে শুল্কমুক্ত সুবিধা দেয়া, গ্রিন ইন্ডাস্ট্রি তৈরির ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় সব যন্ত্রপাতি শুল্ক ও ভ্যাটমুক্ত আমদানি সুবিধাসহ ২৫টি দাবি তুলে ধরা হয়।

এনবিআর চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে আলোচনায় বিজিএমইএ, বিকেএমই এবং বিজিএপিএমইএসহ ১৫ সংগঠনের নেতারা অংশ নেয়। এসময় বিকেএমইয়ের প্রাক্তন ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. হাতেম, বিজিএপিএমইএর প্রাক্তন সভাপতি রাফেজ আলম চৌধুরীসহ সংশ্লিষ্ট খাতের বিভিন্ন নেতারাও উপস্থিত ছিলেন।






মন্তব্য চালু নেই