মেইন ম্যেনু

ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বকালের সেরা পাঁচ গতি তারকা

স্পিনার কিংবা মিডিয়াম ফাস্ট বোলাররা ব্যাটসম্যানদের বুকে কাঁপন ধরাতে পারেন না। যেটা ফাস্ট বোলাররা পারেন। বিশেষ করে যারা ৯০ মাইলের (১৪৪.৮৪ কি.মি) বেশি গতিতে বল করতে পারেন। বর্তমান ক্রিকেট বিশ্বে এমন বেশ কিছু বোলার রয়েছেন যারা ৯০ মাইলের বেশি গতিতে বল করতে পারেন। কিন্তু ক্রিকেট বিশ্ব এমনও বোলার দেখেছে যারা ১০০ মাইলের (১৬০.৯৩ কি.মি.) বেশি বেগে বল করতে পারতেন। আজ তাদের নিয়েই আমাদের আলোচনা। চলুন জেনে নেওয়া যাক ক্রিকেট ইতিহাসের সেই গতি দানবদের নাম ও রেকর্ড।

5

১. শোয়েব আখতার (১৬১.৩ কি.মি.) : ক্রিকেট ইতিহাসের গতি তারকা কিংবা গতি দানবদের কথা আসলে সবার আগে আসবে পাকিস্তানের প্রাক্তন পেসার শোয়েব আখতারের নাম। ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি গতির বল করার রেকর্ডটি এখনো তার দখলে।

২০০৩ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১০০.২ মাইল (১৬১.৩ কি.মি.) গতিতে বল করে বিশ্ব রেকর্ড গড়েন রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস। তার এই রেকর্ডটি এখনো কেউ ছুঁতে পারেনি। নানা বিতর্ক আর ইনজুরির কারণে তারকা এই বোলারের ক্যারিয়ার শেষ হয়ে গেছে। ৪৬ টেস্টে নিয়েছেন ১৭৮ উইকেট। আর ১৬৩ ওয়ানডেতে নিয়েছেন ২৪৭ উইকেট।

4

২. ব্রেট লি (১৬০.৮ কি.মি.) : ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম সেরা গতি তারকা ব্রেট লি। শোয়েব আখতারের সঙ্গে তার বেশ গতির প্রতিদ্বন্দ্বিতা চলত। কিন্তু সামান্যের জন্য তিনি ছুঁতে পারেননি শোয়েবকে। ২০০৫ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে নেপিয়ারে ওয়ানডে ম্যাচে ঘণ্টায় ১০০.১ মাইল (১৬০.৮ কি.মি) গতিতে বল করেন।

যা এখনো দ্বিতীয় সর্বোচ্চ গতির বল। অবশ্য ব্রেট লি এই গতি তুলে ভেঙে দিয়েছিলেন তার স্বদেশি বোলার থমসনের রেকর্ডটি। থমসন ৯৯.৮ মাইল গতিতে বল করেছিলেন। ২০১২ সালের জানুয়ারি মাসে লি সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নেন। ৭৬ টেস্টে ৩১০ ও ২২১ ওয়ানডেতে ৩৮০ উইকেট নিয়েছেন এই গতি তারকা।

3

৩. শন টেইট (১৬০.৮ কি.মি.) : ব্রেট লি পাকিস্তানের পেসার শোয়েব আখতারের গতির রেকর্ড ছুঁতে না পারলেও শন টেইট স্বদেশি গতি তারকার রেকর্ড ছুঁয়েছেন।

২০১০ সালে লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে ম্যাচে ঘণ্টায় ১০০.১ মাইল গতির বল করে তিনি ব্রেট লি’র রেকর্ড স্পর্শ করেন। তরুণ এই পেসার ৩ টেস্টে নিয়েছেন ৫ উইকেট। আর ৩৫ ওয়ানডেতে নিয়েছেন ৭৩ উইকেট।

2

৪. জেফ থমসন (১৬০.৬ কি.মি.) : অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন গতি তারকা জেফ থমসন। ইতিহাসের তৃতীয় সর্বোচ্চ গতির বলটি করেছিলেন তিনি। ১৯৭৬ সালে পার্থে ৯৯.৮ মাইল (১৬০.৬ কি.মি.) গতির বল করে নতুন এক রেকর্ড গড়েছিলেন।

এই গতি তুলে তিনি ভেঙে দিয়েছিলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের কিংবদন্তি বোলার অ্যান্ডি রবার্টসের গতির রেকর্ড। ১৯৭৫ সালে ৯৯.১ মাইল গতির বল করে রেকর্ড গড়েছিলেন রবার্টস। অবশ্য থমসন দাবি করেছেন তিনি নাকি ১১০ মাইলের গতিতেও বল করেছেন। ৫১ টেস্টে তিনি নিয়েছিলেন ২০০ উইকেট। ৫০ ওয়ানডেতে নিয়েছিলেন ৫৫ উইকেট।

1

৫. স্যার অ্যান্ডি রবার্টস (১৫৯.৫ কি.মি.) : ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রাক্তন তারকা বোলার। ১৯৭৫ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে পার্থ টেস্টে ৯৯.১ মাইল (১৫৯.৫ কি.মি.) গতির বল করে নতুন এক রেকর্ড গড়েছিলেন।

ক্রিকেট ইতিহাসে তিনিই ছিলেন প্রথম কোনো পেসার যিনি গতির ঝড় তুলে ৯০ মাইলের ঘর স্পর্শ করেছিলেন। ৪৭ টেস্টে তিনি নিয়েছেন ২০২ উইকেট। আর ৫৬ ওয়ানডেতে নিয়েছিলেন ৮৭ উইকেট। গতির ঝড় তুলে ১৯৭৫ ও ১৯৭৯ দুটি বিশ্বকাপ জিততে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে সাহায্য করেছেন রবার্টস।






মন্তব্য চালু নেই