মেইন ম্যেনু

খাওয়া বন্ধ করলে ধীরে ধীরে কী হতে পারে আপনার শরীরে

আমরা সকলেই জানি খাবার খাওয়া আমাদের জীবনের জন্য অনেক প্রয়োজনীয় একটি বিষয়। আমরা যদি খাদ্য গ্রহণ করা ছেড়ে দেই তাহলে আমাদের বেঁচে থাকা অনেক কষ্টকর হয়ে যাবে। এছাড়াও আমাদের শরীরে এর বিভিন্ন প্রভাব পড়তে দেখা যাবে।

এতো কিছুর পরও প্রতিদিন প্রায় ৭৯৫ মিলিয়ন লোক দিনের পর দিন না খেয়ে থাকে। বিজ্ঞানীরা এ বিষয় নিয়ে গবেষণা করে অনেক কিছু পেয়েছে এবং তারা একটি ভিডিও তৈরি করেছেন। না খাওয়ার ফলে যে সমস্যাগুলো হয়, তা নিম্নে আলোচনা করা হল-

১. ক্ষুধা বৃদ্ধি পায়:
কিছু সময় পর পর আমাদের ক্ষুধার অনুভব হয়। তখন আমাদের রক্তের শর্করা কমতে থাকে। আমাদের শরীরের গ্লাইকোজেন এর কারণে এসব হয়ে থাকে।

5-things-that-happen-when-you-quit-eating-sugar

২. মস্তিস্কে প্রভাব ফেলে:
বেশীক্ষণ না খেয়ে থাকার ফলে তা আমাদের মস্তিষ্কে প্রভাব ফেলে। যার ফলে অনেক সময় অনেক সহজ কোন কাজের সমাধান আমরা খুঁজে পাই না। কয়েক ঘণ্টা না খেয়ে থাকার পর কেউ তার মানসিক স্থিতি ঠিক রাখতে পারে না। আমাদের মস্তিষ্কের কেটোসিস নামক উপাদানের কারণে এরকম সমস্যার সৃষ্টি হয়।

maxresdefault

৩. আমাদের শরীর ভেঙ্গে যেতে শুরু করে:
আমাদের শরীরে যখন চিনি ও ফ্যাট সরবরাহ না হয়, তখন আমাদের শারীরিক কাজ সম্পাদনের জন্য যে শক্তির প্রয়োজন তা খাদ্য ছাড়া অন্য উৎস থেকে নিতে হয়। অর্থাৎ, শরীরে যে প্রোটিন সংরক্ষিত আছে তা দ্বারা কাজ সম্পাদন করা হয়। ৭২ ঘণ্টা না খেয়ে থাকার পর এই সমস্যার সৃষ্টি হয়।

৪. ইমিউন সিস্টেম ধ্বংস হয়:
খাদ্য গ্রহণ না করলে আপনার শরীর রোগের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়তে পারবে না। এতে দিন দিন আপনি দুর্বল হয়ে যাবেন এবং আপনার ইমিউন সিস্টেম ধ্বংস হয়ে যাবে।

no-immune-system-what-would-happen-if-you-stopped-eating-asapscience

৫. মৃত্যু:
৩ সপ্তাহ থেকে ৭০ দিন পর্যন্ত যদি কেউ না খেয়ে থাকে তাহলে তার মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে।

তাই কখনও খাবারকে অবহেলা করবেন না। যারা না খেয়ে থাকে তাদেরকে অবশ্যই সাহায্য করুন।

সূত্র: মেট্রো।






মন্তব্য চালু নেই