মেইন ম্যেনু

খাবার সাজিয়ে ছবি তুলতে ব্যস্ত স্ত্রী, রাগের মাথায় তালাক দিলেন ক্ষুধার্ত স্বামী!

রেস্তোরাঁয় গিয়ে টেবিলে আপনার পছন্দের খাবার পাওয়ার পর অনেকেই আগে সেই খাবারের ছবি তুলে পোস্ট করেন ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম অথবা এই জাতীয় কোনও সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে।

তারপর খাওয়া শেষ হতে না হতেই সেই পোস্টের নিচে জমা হয় শ’খানেক লাইক আর গুচ্ছ খানেক কমেন্ট। যার যত বেশি লাইক আর কমেন্ট, তার জনপ্রিয়তাও যেন ততটাই বেশি! কিন্তু রেস্তোরাঁয় গিয়ে খাবারের ছবি তুলে পোস্ট করার ফলে যদি বিবাহ বিচ্ছেদ হয়ে যায়! ভাবছেন, এমনও আবার হয় নাকি! হ্যাঁ, তিন দিন আগে এমনটাই হয়েছে জর্ডনের রাজধানী শহর আম্মানে।

সে দেশের একটি সংবাদমাধ্যমের খবর, আম্মানের এক নামী রেস্তোরাঁয় স্ত্রীকে সঙ্গে নিয়ে নৈশভোজে গিয়েছিলেন এক ব্যক্তি। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত রেস্তোরাঁয় তখন ব্যাপক ভিড়। ফলে পছন্দের খাবার টেবিলে পেতে ঘণ্টা খানেক অপেক্ষা করতে হয় তাদের। যতক্ষণে খাবার হাতে পেলেন তাঁরা, ততক্ষণে খিদের চোটে পেটে ছুঁচোয় ডন দিচ্ছে। খাবার পেয়েই ওই ব্যক্তি যখন মোটামুটি তাতে ঝাঁপাতে প্রস্তুত হচ্ছেন, তখনই তাতে বাধ সাধলেন তার স্ত্রী।

তিনি তখন টেবিলে সাজানো খাবারের ছবি তুলে স্ন্যাপচ্যাটে শেয়ার করতে ব্যস্ত। স্ত্রীর ব্যাপার স্যাপার দেখে তখন বেজায় চটে গিয়েছেন ওই ভদ্রলোক। কিছুক্ষণ অপেক্ষার পর তার মনে হয়, তার কষ্টটা স্ত্রী মোটেই পাত্তা দিচ্ছেন না! উল্টো সামনের সাজানো খাবার না খেয়ে ছবির পর ছবি তুলেই চলেছেন।

আর মাথা ঠিক রাখতে পারেননি তিনি। স্ত্রীকে তিন তালাক দিয়ে রেস্তোরাঁ ছেড়ে বেড়িয়ে যান। স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম ‘আল আরবিয়া’ সূত্রের দাবি, ওই ব্যক্তি রাগের মাথায় স্ত্রীকে তালাক দিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার ফলে রেস্তোরাঁ কর্তৃপক্ষ তাদের খাবারের দাম পর্যন্ত পাননি।






মন্তব্য চালু নেই