মেইন ম্যেনু

খালেদার আত্মপক্ষ সমর্থন ১৯ মে

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য ১৯ মে দিন ধার্য করেছেন আদালত।

সময়ের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার বকশীবাজারের আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত তৃতীয় বিশেষ জজ আবু আহমেদ জমাদ্দার বৃহস্পতিবার এ দিন ধার্য করেন। এ নিয়ে তৃতীয় বার খালেদার আত্মপক্ষের সমর্থনের দিন পেছালো।

বৃহস্পতিবার (৫ মে) খালেদা জিয়ার আত্মপক্ষ সমর্থনের দিন ধার্য ছিলো। কিন্তু মামলার বাদীকে পুনরায় জেরা ও মামলার সিডি দেখতে না দেওয়ায় খালেদার আইনজীবীরা হাইকোর্টে দুইটি আবেদন করেন। আবেদন দুইটি শুনানির অপেক্ষায় থাকায় আদালতের কাছে আত্মপক্ষ সমর্থনে সময় পেছানোর আবেদন করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া।

অপরদিকে, খালেদা জিয়া অসুস্থজনিত কারণে আদালতে হাজির হতে না পারায় অপর একটি আবেদন করেন তার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া। আদালত সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে আত্মপক্ষের সমর্থনের ১৯ মে ধার্য করেন।

এর আগে গত ৭, ১৭ ও ২৫ এপ্রিল খালেদার আত্মপক্ষের সমর্থনের দিন থাকলেও তা পেছানো হয়। এ মামলায় বিভিন্ন সময়ে ৩২ জন্য সাক্ষ্য দিয়েছেন।

মামলার এজাহার থেকে জানা যায়, জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের নামে অবৈধভাবে তিন কোটি ১৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকা লেনদেনের অভিযোগ এনে খালেদা জিয়াসহ চারজনের বিরুদ্ধে ২০১০ সালের ৮ আগস্ট তেজগাঁও থানায় মামলা করে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

ওই মামলার অপর আসামিরা হলেন, খালেদা জিয়ার সাবেক রাজনৈতিক সচিব হারিছ চৌধুরী, হারিছের তৎকালীন সহকারী একান্ত সচিব ও বিআইডব্লিউটিএ’র নৌ-নিরাপত্তা ও ট্রাফিক বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক জিয়াউল ইসলাম মুন্না এবং ঢাকার সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার একান্ত সচিব মনিরুল ইসলাম খান।






মন্তব্য চালু নেই