মেইন ম্যেনু

খুশকি দূর করে দেবে অ্যাপেল সাইডার ভিনেগারের এই ৪টি ব্যবহার

নারী পুরুষ সবাইকে খুশকি সমস্যায় পড়তে হয়। শীত অথবা গ্রীষ্ম সব ঋতুতে খুশকি সমস্যার মধ্য দিয়ে যেতে হয়। তবে অন্যান্য সময়ের থেকে শীতকালে এই সমস্যা বেশি হয়। খুশকি মাথার তালুতে হয়ে থাকে। এটি ত্বকের মৃত কোষ। এর কারণে ত্বকে চুলকানি হয়। সাধারণত অনিয়মিত চুল ব্রাশ, ময়লা চিরুনি ব্যবহার, শুষ্ক ত্বক, নিয়মিত শ্যাম্পু না করা, অতিরিক্ত তৈলাক্ত ত্বক, মাথার তালুতে যেকোন চর্ম রোগ, ইস্ট বা ফাঙ্গাস, কোন শ্যাম্পু অথবা হেয়ার প্রোডাক্টের পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া ইত্যাদি কারণে চুলে খুশকি হতে পারে।

অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার দিয়ে খুশকিকে দূর করে দিতে পারেন চিরতরে। ভাবছেন কীভাবে? অ্যাপেল সাইডার ভিনেগারের অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল, অ্যান্টি ইনফ্লামেটরী উপাদান মাথার ত্বক ময়েশ্চারাইজ করে খুশকি দূর করে দেয়। অ্যাপেল সাইডার ভিনেগারের কিছু কার্যকরী হেয়ার প্যাক সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

১। একটি পাত্রে অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার নিয়ে নিন। এরপর একটি তুলোর বল তাতে ভিজিয়ে মাথার তালুতে ম্যাসাজ করে লাগান। এবার একটি টাওয়েল গরম পানিতে ভিজিয়ে নিন। এই টাওয়েল দিয়ে মাথা পেঁচিয়ে রাখুন। এক ঘন্টা পর কুসুম গরম পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুইবার এই পদ্ধতি ব্যবহার করুন। দেখবেন এক মাসের মধ্যে খুশকি গায়েব হয়ে গেছে।

২। মেথি সারা রাত ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন সকালে বেটে পেস্ট করে নিন। মেথির পেস্টের সাথে কয়েক ফোঁটা অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার মিশিয়ে নিন। এবার এই পেস্টটি মাথার তালুতে ম্যাসাজ করে লাগান। কয়েক মিনিট পর শ্যাম্পু করে ফেলুন।

৩। সম পরিমাণ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার এবং পানি মিশিয়ে নিন। এটি একটি স্প্রে বোতলে ভরে রাখুন। এবার এটি চুল এবং মাথার তালুতে স্প্রে করুন। সম্পূর্ন চুল গরম পানিতে ভেজানো টাওয়েল দিয়ে পেঁচিয়ে রাখুন। ৩০ মিনিট পর চুল ধুয়ে ফেলুন। এটি সপ্তাহে দুইবার করুন।

৪। ১/৪ কাপ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার, এক কাপ পানি এবং ১/২ চা চামচ অলিভ অয়েল, ৫ ফোঁটা টি ট্রি অয়েল এবং অর্ধেকটা লেবুর রস মিশিয়ে নিন। এটি ভাল করে ঝাঁকিয়ে নিন। তারপর মাথার তালুতে স্প্রে করে লাগিয়ে নিন। শাওয়ার ক্যাপ দিয়ে মাথা পেঁচিয়ে রাখুন। আধা ঘন্টা পর শ্যাম্পু করে ফেলুন।

সতর্কতা:

  • অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার সরাসরি মাথার তালুতে ব্যবহার করার পূর্বে অল্প কিছু পরিমাণ প্রথমে লাগিয়ে
  • দেখুন এটি মাথার তালু সহ্য করতে পারছে কিনা তারপর ব্যবহার করুন।
  • যদি কোন প্রকার পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়, তবে এটি ব্যবহার করা বন্ধ করুন।
  • অ্যাপেল সাইডার ভিনেগারের সাথে পানি মিশিয়ে ব্যবহার করা ভাল। (প্রিয়.কম)





মন্তব্য চালু নেই