মেইন ম্যেনু

খেলাধূলায় দক্ষতা বাড়তে সাহায্য করবে যে পাঁচটি জুতো

আপনি হয়ত ভাবছেন খেলার জন্য আবার বিশেষ জুতোর কি দরকার! অল্পসময়ে সাধারণ খেলাধূলার জন্য বিশেষ কোন জুতোর প্রয়োজন নেই ঠিকই। কিন্তু খেলা যদি হয় আপনার নেশা, খেলাধূলাতেই যদি গড়ে তুলতে চান আপনার ক্যারিয়ার তবে আপনার জন্যই বানানো হয়েছে এই জুতোগুলো।

১।নাইকি জুম স্ট্রাকচার ১৯
নাইকি জুম স্ট্রাকচার দৌড়ের জন্য বিশেষ টেকনোলজিতে তৈরি নাইকি কোম্পানির এযাবৎ কালের সবচেয়ে চমৎকার জুতো। জুম পরিবারের সর্বশেষ সংযোজন জুম স্ট্রাকচার ১৯। পায়ের গঠন অনুযায়ী তৈরি এই জুতোয় এমন সব উপকরন ব্যাবহার করা হয়েছে যা আপনাকে দৌড়ে সহযোগিতা করে। মাংপেশীতে আলাদা কোন চাপ তৈরি করে না, হাড়ের উপরও জোর দেয় না। ফলে দৌড়ের ক্লান্তি কম হয়।

২।এডিডাস সুপারনোভা সিকোয়েন্স বুস্ট ৭

দৌড়ের জন্য এটি ২য় চমৎকার জুতা। এডিডাস জুতোটি এমন ভাবে তৈরি করেছেন যাতে পায়ের পাতা সুন্দর মত ফিট হয়। এর নরম ফোমের ব্যবহার জুতোটিকে করেছে আরো আরামদায়ক।

৩। ASICS জেল-লাইট৩৩টীএম ৩

ওজনে খুবই হালকা এই জুতোটি যেকোন ধরণের খেলাধূলায় হতে পারে চমৎকার সঙ্গী। জুতোর সোলটি যতটুকু সম্ভব পাতলা করা হয়েছে, কিন্তু শক্ত করা হয় নি একদমই। বরং ছোট ছোট খোপের মত করা হয়েছে সোলের ভেতরে যা সহজে শরীরের ওজন নিতে পারে।

৪। নাইকি ফ্লাইকিট লুনার ৩

জুতোটিতে খুব সুন্দরভাবে পা ফিট হয়ে যায়। মাঝের সোলে ফোম ব্যবহার করে নরম করা হয়েছে যা পাকে আরাম দেয়। অনেকদূর পর্যন্ত দৌড়াতে সহযোগিতা করবে জুতোটি। এমনকি যেকোন খেলায় এই জুতো নিশ্চিত করবে কম ক্লান্তি, বাড়াবে দীর্ঘসময় খেলার দক্ষতা।

৫) পুমা ফাস ৩০০ ভি ৩
পুরু রাবার দিয়ে তৈরী করা হয়েছে এই জুতোর সোল। এটার ওজন হালকা, টেকশই, আরামদায়ক। পর্বোতারোহণসহ যেকোন খেলায় একটি অতুলনীয় সহায়ক হতে পারে এই জুতোটি।






মন্তব্য চালু নেই