মেইন ম্যেনু

গোসল করার সময় আমরা যে ভুল গুলো করি

আপনি কি নিজেকে ভীষণ পরিছন্ন ভাবেন ? পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার তাগিদে রোজ রোজ গোসল করেন বুঝি? বেশ সাবান মেখে, মাজনী দিয়ে ঘসে ঘসে? এ সব করে ভাবছেন বুঝি হেব্বি সাফসুতরো থাকা গেল? আসলে পুরোটাই ভুল ভাবছেন। জানেন কি রোজ রোজ গোসল করাটাও মোটের কাজের কথা নয়?

গোসল করার সময় যে ভুল গুলো আমরা প্রায়ই করি:

গোসলের সময় মুখ ধোয়া- গোসলের সময় মুখ ধুলে কিন্তু ক্ষতিগ্রস্থ হতে পারে ত্বক। গরম জলে ভুলেও মুখ ধোবেন না। সব সময় চেষ্টা করবেন আলাদা করে ঠাণ্ডা জলে মুখ ধোওয়ার। ঠাণ্ডা জল মুখের ঔজ্জ্বল্য বাড়িয়ে তোলে।

পরিবেশ সম্পর্কে- অনেকে বাথ টবে বা মগ বালতি নিয়ে গোসল করার থেকে শাওয়ারের তলায় গোসল করার পরামর্শ দেন। তাঁদের যুক্তি শাওয়ারে গোসল করলে অনেক কম জল খরচ হয়। কিন্তু যারা খুব পিটপিটে হন তারা শাওয়ারেও ঘণ্টার পর ঘণ্টা গোসল করে যান। ফলে জল খরচ কমার বদলে ঢের বেড়ে যায়।

রোজ গোসল করা- রোজ গোসল না করা মানেই আপনি অপরিচ্ছন্ন এমনটা ভাবার কোনও কারণ নেই। আমাদের ত্বকে এমন অনেক ব্যাকটেরিয়া বাসা বাঁধে, যারা বেশ উপকারী। রোজ গোসল করলে সেই সব ব্যাকটেরিয়া মারা পড়ে। যার ফলে আখেরে ত্বকের বেশ ক্ষতি হয়। বাড়ে ইনফেকশনের সম্ভাবনাও।

মাজনী ব্যবহার- স্যাঁতস্যাঁতে ভেজা মাজনী আসলে ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়ার আঁতুড়ঘর। অনেকটা ফার্টাইল পেট্রিডিশের মতো। যেখানে ব্যাকটেরিয়ারা বংশবিস্তার করে। যদি মাজনী ব্যবহারে আপনার আসক্তি থাকে তাহলে রোজ সেটা ধুয়ে শুকিয়ে রাখুন।






মন্তব্য চালু নেই