মেইন ম্যেনু

ঘর ভাড়া আদায়ে ভাড়াটিয়াকে প্রত্যেক মাসে ধর্ষণ!

সময়মতো ঘর ভাড়া দেওয়া সম্ভব না হওয়ার কারণ দেখিয়ে এক ভাড়াটিয়াকে প্রত্যেক মাসে ধর্ষণ করতো বাড়ির মালিক সুনীল। প্রতিবাদ করলে মেরে ফেলার হুমকিও দেওয়া হতো। ফলে মাসের পর মাস এভাবে ধর্ষণের শিকার হন ওই নারী।

বর্তমান সভ্য সমাজেও এই ন্যাক্কারজনক ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের হরিয়ানা রাজ্যের ফরিদাবাদের সুরজকুণ্ড থানা এলাকায়। এদিকে ওই নারীর অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

নির্যাতিতা ওই নারী জানিয়েছেন, তিনি প্রায় ১০ বছর ধরে সুনীল নামের এক ব্যক্তির বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। আর্থিক সমস্যার কারণে বিগত দুবছর ধরে তিনি সুনীলকে ঠিক সময়ে বাড়ি ভাড়া দিতে পারছিলেন না। এই সুযোগে সুনীল ভাড়া আদায়ের নাম করে তার ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করত এবং এই কথা কাউকে জানালে প্রাণে মারার হুমকি দিত।

ওই নারী জানিয়েছেন, এই কারণেই তিনি তিন মাস আগে সুনীলের বাড়ি থেকে অন্যত্র চলে যান। কিন্তু ১৮ মার্চ তার সঙ্গে রাস্তযায় সুনীলের দেখা হয়। সে নারীকে ভয় দেখিয়ে তার বাড়িতে নিয়ে গিয়ে ফের ধর্ষণ করে।

সুরজকুণ্ড থানার এসএইচও জানিয়েছেন, মামলার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। খুব তাড়াতাড়ি অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হবে।






মন্তব্য চালু নেই