মেইন ম্যেনু

চশমায় আড়ালেই নারীর সৌন্দর্য

কম দৃষ্টিশক্তির কারণে অনেক মেয়েকেই চশমা পরতে হয়। চশমার মোটা ফ্রেমে আড়ালেই থেকে যায় তাদের সুন্দর চোখ। তাই আজকে রইলো সেইসব মেয়েদের জন্য কিছু টিপস যারা চশমা পরেন‚ আর চোখের সৌন্দর্য না দেখাতে পেরে দুঃখ পান। এই টিপসগুলো মানলে দেখবেন চশমা পরতে আর খারাপ লাগছে না। সেই সঙ্গে আপনার চোখও সবার দৃষ্টি আকর্ষণ করবে।

• যারা চশমা পরেন তারা কিন্তু অজান্তেই চোখের নিচে কালি ও ফোলাভাব আরো বেশি করে হাইলাইট করে ফেলেন। তাই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব চোখের কালি ও ফোলা ভাব ঠিক করুন। চোখের নিচের ফোলাভাব বরফ ঘষলে কমে যায়। তাই মেকআপ করার আগে চোখের নিচে একটু বরফ ঘষে নিন। এরপর কালার কারেক্টিং কনসিলার দিয়ে ভালো করে চোখের কালি মুছে ফেলুন। চোখের নিচের পাতায় কাজল বা আই লাইনার না লাগানোই ভালো। কারণ এতে চোখের কালি আর ফোলা ভাব আরো বেশি করে দৃষ্টি আকর্ষণ করবে।

• এটা সত্যি যে চশমার কারণে চোখের আইশ্যাডো ঢাকা পড়ে যায়। তাই ন্যুড কালার বা সোনালী রং দিয়ে চোখের পাতা হাইলাইট করুন‚ এরফলে চোখ অনেকটা বড় দেখাবে।

• চোখের আইশ্যাডো এমন রঙের নির্বাচন করুন যাতে সেটা চশমার ভিতর দিয়ে দেখা যায়। তবে মনে রাখবেন চশমার ফ্রেম আর আইশ্যাডোর রং যেন আলাদা হয়। নীল‚ সবুজ এবং লাইল্যাক রং খুব ভালো দেখায়। চোখের পাতায় প্রথমে একটা হালকা রং লাগিয়ে নিন। এবার চোখের বাইরের কোণায় গাঢ় রঙ লাগান।

• যে মেয়েরা চশমা পরেন, তাদের জন্য চোখের পাতা হাইলাইট করা অত্যন্ত জরুরী। ভালো করে মাসকারা লাগানোর আগে আইল্যাশ কার্লার দিয়ে চোখের পাতা কার্ল করে নিন। এরপর দু তিনবার মাস্কারা লাগান।

• আই লাইনার লাগানোর আগে মনে রাখবেন আপনার চশমার ফ্রেম যতটা মোটা হবে আই লাইনার ও যেন তত মোটা হয়।

• চশমার ফলে আপনার চোখ ম্যাগনিফাই হয়ে বড় দেখায়, তার সুযোগ নিন। চোখের নিচের পাতায় হালকা করে শিমার বা উজ্জ্বল কোন রং লাগান।

• চোখ যখন চশমায় ঢাকা তখন চোখ ছাড়া যাতে ঠোঁটে অন্যের চোখ আটকে যায় তার ব্যবস্থা করুন। আইশ্যাডোর কথা ভুলে গাঢ় লাল রঙের লিপস্টিক দিয়ে ঠোঁট রাঙিয়ে তুলুন। হট পিঙ্ক বা ডিপ বেরীও পছন্দ করতে পারেন।ম এছাড়াও গালে অবশ্যই ব্লাশ লাগান।






মন্তব্য চালু নেই