মেইন ম্যেনু

জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে এক লাখ আলেমের ফতোয়া

সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে ফতোয়া দিয়েছেন দেশের এক লাখের বেশি মুফতি, ওলামা ও আইম্মা।

আজ শনিবার রাজধানীর ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) এক সংবাদ সম্মেলনে ফতোয়ার বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান ঐতিহাসিক শোলাকিয়া ঈদগাহের গ্র্যান্ড ইমাম ফরীদ উদ্দীন মাসউদ।

সংবাদ সম্মেলনে ‘সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদবিরোধী মানবকল্যাণে শান্তির ফতওয়া’শীর্ষক এই ফতোয়ার বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন ফরীদ উদ্দীন মাসউদ।

ফতোয়া দেওয়ার বিষয়টি নতুন কি না, তা ফরীদ উদ্দীন মাসউদের কাছে জানতে চান একজন সাংবাদিক। জবাবে তিনি বলেন, ‘আমরা ওয়েট (অপেক্ষা) করি নাই। আমি তো যখন নাইন-ইলাভেনের ঘটনা ঘটেছে, তখন মাত্র দুই দিন আগে আমি আমেরিকায় একটা সেমিনার করে লন্ডনে ছিলাম তখন। আমি তখন মুসলমানদের লন্ডনে কেউ কেউ উল্লাস করছিল। আমি বলছিলাম যে, এটা মুসলমানদের জন্য উল্লাসের দিন নয়। কেন না, এটা বিশেষ করে যারা পাশ্চাত্যে মুসলমানরা থাকছেন, বসবাস করছেন, তাদের জন্য বিপদের কারণ হবে। এর পরবর্তীতে আমরা দেখেছি একে অবলম্বন করে পাকিস্তান, আফগানিস্তানকে সরাসরিভাবে এবং অন্যান্য মুসলিম দেশগুলোকে কীভাবে ছারখার করে দেওয়া হয়েছে।’

‘সুতরাং এটা আমি নতুন নয়। তবে এক লক্ষ সংগ্রহ করাটাকে ইদানীংকার, গত পাঁচ মাস আগে থেকে আমরা উদ্যোগ নিয়েছি এবং এটা শুরু করেছি।’

ফতোয়া দেওয়ার বিষয়ে বিদেশিদের সঙ্গে যোগাযোগ হয়েছে কি না—এমন প্রশ্নের জবাবে মাসউদ বলেন, ‘পৃথিবীর অন্যান্য যারা ইসলামী চিন্তাবিদ, তাদের সঙ্গে আমাদের যোগাযোগ হয়েছে। সামনেও ইনশাল্লাহ যোগাযোগ হতে থাকবে। এই জন্যই তো বললাম যে, মক্কা শরিফের ইমাম সাহেবের সঙ্গে আমাদের প্রাথমিক যোগাযোগ হয়েছে।’






মন্তব্য চালু নেই