মেইন ম্যেনু

জাপায় বিদ্রোহ, রওশন ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের জাতীয় পার্টিতে (জাপা) বিদ্রোহ ঘটেছে। জাপার চেয়ারম্যান এরশাদ তার ছোট ভাই জি এম কাদেরকে কো-চেয়ারম্যান পদে নিয়োগ দেয়ার ঘোষণার এক দিনের মাথায় তার স্ত্রী রওশন এরশাদকে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে ঘোষণা করেছে দলের একাংশ।

সোমবার সন্ধ্যায় নিজের গুলশানের বাসায় জাপার কয়েকজন সংসদ সদস্য ও জ্যেষ্ঠ নেতাকে নিয়ে বৈঠক করেন জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা ও জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য রওশন এরশাদ। সেখানে রওশানকে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে ঘোষণা দেন জাপার মহাসচিব জিয়াউদ্দিন বাবলু।

তাদের দাবি, নিয়ম বহির্ভূতভাবে জি এম কাদেরকে কো-চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন এরশাদ।

এর আগে জিয়াউদ্দিন বাবলু জানিয়েছিলেন, জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য জি এম কাদেরকে দলের কো-চেয়ারম্যান নিয়োগ দিতে এরশাদের সিদ্ধান্তের বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানাতে তারা বৈঠকে বসছেন।

গতকাল রোববার রংপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে এরশাদ কোনো রকম আলোচনা ছাড়াই ছোট ভাই জি এম কাদেরকে দলের কো-চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব দেন।

এ ঘটনায় সেদিনই ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন দলের মহাসচিব বাবলু ও সরকারে জাপার মন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ। তারা জানান, দলের কো-চেয়ারম্যান বলে কোনো পদ নেই।

ওদিকে আবার দলের সর্বময় ক্ষমতার অধিকারী এরশাদ সংবাদ সম্মেলনে বলেন, এপ্রিলে কাউন্সিল করে কো-চেয়ারম্যানের পদ সৃষ্টি করা হবে। আর কাউন্সিলের প্রস্তুতির জন্য জি এম কাদেরকে আহ্বায়ক করে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটিও ঘোষণা দেন।

এরই প্রতিক্রিয়ায় সোমবার বিকালে রওশনপন্থী হিসেবে পরিচিত বর্তমান সরকারের তিন মন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, মুজিবুল হক চুন্নু ও মশিউর রহমান রাঙ্গা, দলের মহাসচিব বাবলুসহ সাত-আটজন ঘনিষ্ঠ নেতাকে নিয়ে গুলশানের বাসায় বৈঠক করেন রওশন।

এরপর সন্ধ্যায় রওশন এরশাদ আবার দলের সাংসদ ও কয়েকজন জ্যেষ্ঠ নেতাকে নিয়ে যৌথ বৈঠক করেন। সেখানেই তাকে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে ঘোষণা দেয়া হয়। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, মুজিবুল হক চুন্নু, মশিউর রহমান রাঙ্গা, জিয়াউদ্দিন বাবলু প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই