মেইন ম্যেনু

জুবায়েরের মাঝে নিজেকে দেখছেন সাকিব!

বাংলাদেশের ক্রিকেটে সাকিবের অবদান কতটুকু তা সবারই জানা। টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির সেরা অলরাউন্ডার নির্বাচিত হওয়া পুরো বিশ্বের একমাত্র ক্রিকেটার বাংলাদেশের সাকিব। নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়েছেন সাকিব, যেখানে তার সঙ্গে শুধু তারই তুলনা চলে। সাকিব নিজেও জানেন, তিনি বাংলাদেশের ক্রিকেটের কত বড় সম্পদ।

সেই সাকিবের চোখে এখন বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সম্পদ লেগ স্পিনার জুবায়ের হোসেন লিখন। শুক্রবার জুবায়ের হোসেন লিখন যেভাবে বোলিং করেছেন তাতে মুগ্ধ সাকিব। উদীয়মান এই লেগ স্পিনারকে নিয়ে সাকিব আল হাসান শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে বলেন,‘আমার কাছে মনে হয় ও (জুবায়ের হোসেন) বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটের অনেক বড় সম্পদ। আমি বিশ্বাস করি, জুবায়ের এমন একজন স্পিনার যার ৩০০-৪০০ উইকেট নেওয়ার ক্ষমতা আছে। ’

জুবায়েরের বোলিং প্রতিভা নিয়ে সাকিব বলেন,‘ও (জুবায়ের) জিম্বাবুয়ের সঙ্গে টেস্ট ম্যাচের পর ম্যাচ খেলছে কিনা সন্দেহ আছে। তারপরও যেভাবে বোলিং করেছে তা অসাধারণ। ও যদি আরো ভালো জায়গায় বল করত সে ক্ষেত্রে আরো উইকেট পাওয়া সম্ভব হত। লেগ স্পিনারের জন্য ভালো জায়গায় বোলিং করাটা কঠিন। অনেকদিন পর ম্যাচ খেলা, তাও আবার বড় দলের সঙ্গে, খুবই কঠিন কাজ। ওর বল যে জায়গায় হচ্ছে এটাতেই আমি অবাক হয়েছি। ওর অনকেগুলো বল ব্যাটসম্যানদের জন্যে হুমকি সৃষ্টি করেছে। ওর লেগ স্পিনও অনেক টার্ন করেছে। ব্যাটসম্যানরা ওর বলে কী করবে, বুঝে উঠতে পারেনি।’

গত বছর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ঘরের মাঠে অভিষেক সিরিজে ৩ ম্যাচে ১১ উইকেট নেন জুবায়ের। এরপর আর জাতীয় দলে ফেরা হয়নি তার। যদিও পাকিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট স্কোয়াডে ছিলেন তিনি। কিন্তু ম্যাচ খেলতে পারেনি। মোট কথা, গত বছরের ২৮ নভেম্বরের পর ভারতের বিপক্ষেই প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে মাঠে নামেন জুবায়ের। এ ছাড়া ঘরোয়া লিগগুলোতেও তাকে নিয়ে ঝুঁকি নিতে চাননা কোচরা। প্রিমিয়ার লিগে আবাহনীর হয়ে ম্যাচ খেলেছেন মাত্র একটি। আর জাতীয় লিগে খেলেছেন মাত্র ৫ ম্যাচ। খেলা হয়নি বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগেও।

লেগ স্পিনারের ঘরোয়া ক্রিকেটে না খেলাটাকে নেতিবাচক হিসেবে দেখছেন সাকিব আল হাসান। এক প্রশ্নের জবাবে সাকিব বলেন,‘বিসিএল ও প্রিমিয়ার লিগে যদি খেলার সুযোগ না পায়, তাহলে সেটা ওর জন্য এবং জাতীয় দলের জন্য খারাপ। যারা আমাদের এই জিনিসগুলো দেখাশোনা করেন তাদের এ বিষয়টি সিরিয়াসলি দেখা উচিত।’ জুবায়েরের সাফল্যের জন্যে সবাইকে ধৈর্য্য ধরার আহ্বান জানিয়েছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।






মন্তব্য চালু নেই