মেইন ম্যেনু

জেনে নিন ত্বকের ধরণ অনুযায়ী দারুণ উপকারি টমেটোর ফেইস প্যাক

ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে ত্বক মসৃণ ও কোমল করে তোলার জন্য অনেক নামি দামি ক্রিম লোশন আমরা ব্যবহার করে থাকি। তবে জানেন কি প্রতিটি ত্বকের জন্য আছে আলাদা আলাদা ফেইস প্যাক? বেসন হোক বা অ্যালোভেরা প্যাক প্যাকই হোক প্রতিটি ত্বকের ধরণ অনু্যায়ে আছে প্যাকের ভিন্নতা। যে প্যাকটি তৈলাক্ত ত্বকের জন্য উপযোগী সেটি শুষ্ক ত্বকের জন্য উপযোগী নাও হতে পারে। ঠিক তেমনি টমেটো প্যাকেরও আছে ত্বকের ধরণ অনুযায়ে ভিন্ন ভিন্ন ফেইস প্যাক।

যেভাবে কাজ করে

টমেটোতে লাইকোপিন নামক উপাদান আছে যা ত্বকের বলিরেখা দূর করে ত্বকে অক্সিজেন সরবারহ করে থাকে। নিয়মিত টমেটোর প্যাক ব্যবহারে ত্বকের রোদে পোড়া দাগ হালকা হয়, ব্রণের প্রবণতা কমিয়ে ত্বক উজ্জ্বল করে থাকে।

১। তৈলাক্ত ত্বকের জন্য

১টি টমেটো

২\৩ টেবিল চামচ শসার রস

২ টেবিল চামচ মধু

টমেটোর রস, শসার পেষ্ট এবং মধু পেস্ট তৈরি করে নিন। এবার একটি তুলার বল বা হাত দিয়ে পেষ্টটি মুখে লাগান। ১৫-২০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনার ত্বকের তেল কমিয়ে দিয়ে ব্রণ হওয়ার প্রবণতা কমিয়ে থাকে।

২। শুষ্ক ত্বকের জন্য

১টি টমেটোর রস

১ চা চামচ অলিভ অয়েল

টমেটোর রস এবং অলিভ অয়েল মিশিয়ে নিন। এবার এটি ভাল করে মুখে লাগান। ১৫-২০ মিনিট পর কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই প্যাকটি আপনার ত্বক নরম কোমল করার পাশাপাশি ত্বক ময়েশ্চারাইজ করে থাকে।

৩। স্বাভাবিক ত্বকের জন্য

১ চা চামচ টমেটোর রস

১ চা চামচ লেবুর রস

টমেটোর রস এবং লেবুর রস ভাল করে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে নিন। ১০-১৫ মিনিট পর ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনার ত্বক নরম করার পাশাপাশি ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করতে সাহায্য করবে। আপনি এতে ওটমিল পাউডারও মিশিয়ে নিতে পারেন। ওটমিল খুব ভাল স্ক্রাবিং হিসেবে কাজ করে।

টিপস

একটি টমেটো কেটে বীচি ফেলে রস করে ফেলুন।

মুখ ভাল করে ধুয়ে ফেলুন।

মুখ শুকিয়ে গেলে টমেটোর রস ম্যাসাজ করে লাগান।

আধা ঘণ্টা মুখে লাগিয়ে দিন।

তারপর ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।এটি দ্রুত ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে থাকে।

ফটো ক্রেডিট: krasotalife.ru






মন্তব্য চালু নেই