মেইন ম্যেনু

টুকিটাকি স্ন্যাক্স খেয়েও সুস্থ থাকার দারুণ কিছু টিপস

ঘুম থেকে ওঠার পর ঘুমাতে যাবার আগ পর্যন্ত আমরা তিনবার মুলত খেয়ে থাকি, কিন্তু এর মাঝে টুকিটাকি খাওয়া হয় বেশ কয়েকবার। সাবধান না থাকলে এসব “স্ন্যাক্স” আমাদের স্বাস্থ্যের বারোটা বাজিয়ে দিতে পারে। জেনে নিন কী করে স্ন্যাক্স খেয়েও থাকবেন সুস্থ।

খেতে ভালোবাসেন অনেকেই। কিন্তু এই খাওয়াটা বেশি হয়ে গেলেই সমস্যা। অসময়ে ক্ষুধা লাগলে খাওয়ার আগে নিজেকে করুন এই প্রশ্নগুলো।

১) আপনার কি খাওয়াটা জরুরী?

অনেক সময়ে আমরা একঘেয়েমি অথবা স্ট্রেসের জন্য ক্ষুধা না লাগলেও খেতে থাকি। তাই লক্ষ্য করে দেখুন আপনার আসলে ক্ষুধা লেগেছে নাকি আপনি এমনিতেই খাবার খুঁজছেন। ক্ষুধা না লাগলে খাবারের দিকে হাত বাড়াবেন না। প্রতিদিন যদি একই সময়ে ক্ষুধা লাগে তবে ওই সময়ে খাওয়ার জন্য কিছু হাতের কাছে রাখুন।

২) স্ন্যাক খাচ্ছেন নাকি মজাদার খাবার খুঁজছেন?

ফাস্ট ফুড, জাঙ্ক ফুড, মিষ্টি খাবার খেতে ইচ্ছে করছে বলেই যে এগুলো দিয়ে ক্ষুধা মেটাতে হবে এমনটা নয়। বরং ক্ষুধা মেটান স্বাস্থ্যকর খাবার খেয়ে। যেমন টক দই, বাদাম, টাটকা ফল ইত্যাদি।

৩) অতিরিক্ত কার্ব খাচ্ছেন না তো?

বিস্কুট, চিপস এবং পাউরুটি জাতীয় খাবারগুলো পেট ভরালেও এগুলোতে আসলে থাকে প্রচুর কার্বোহাইড্রেট। পেট বেশিক্ষণ ভরা রাখতে পারে না এগুলো। এ কারণে এদের সাথে কিছু প্রোটিন এবং স্বাস্থ্যকর ফ্যাটও খাওয়া চাই।

৪) বেশি পরিমাণে খাচ্ছেন না তো?

স্বাস্থ্যকর খাবারও বেশি পরিমাণে খেলে শরীরের জন্য তা খারাপ হয়ে দাঁড়ায়। মোটামুটি ১২৫ থেকে ২৫০ ক্যালোরির মাঝে সীমাবদ্ধ রাখার চেষ্টা করুন আপনার স্ন্যাক্স।

৫) আপনি খাওয়া শুরু করলে থামতে সমস্যা হয়?

অনেকেই আছেন একবার খাওয়া শুরু করলে আর থামতে পারেন না। বিশেষ করে টিভির সামনে বসে খেতেই থাকেন, খেতেই থাকেন। এই অভ্যাস থেকে বের হয় আসুন। একটা প্লেট বা বাটিতে মেপে খাবার নিন এবং এটুকুই খান।

কিছু টিপস-

– হাতের কাছে রাখুন আপনার প্রিয় বাদামগুলো

– গাজর, শসা, টমেটো এবং ব্রকোলি খাবার চেষ্টা করুন

– ফ্রিজে সব সময়ে ফল ও সবজি রাখুন

– বাসায় বেশি কুকি এবং চিপস রাখবেন না

– বাইরে গেলে আপেল, পেয়ারা, নাশপাতি এ ধরণের ফল ব্যাগে রাখুন

– যথেষ্ট পানি পান করুন

তথ্যসূত্র: 4 Tricks For Healthier Snacking, Huffington Post

7 Tricks To Snack Healthier And Exercise Harder, Womanitely

6 Simple Tricks For Healthy Snacking, kristineskitchenblog.com






মন্তব্য চালু নেই