মেইন ম্যেনু

ঠোঁটের কালচেভাব দূর করুন প্রাকৃতিক উপায়ে

এতে কোন সন্দেহ নাই যে গোলাপি ঠোঁট পুরুষ ও মহিলা উভয়েরই আকর্ষণীয় বৈশিষ্ট্য। তাই যাদের ঠোঁটের রঙ কালো তারা একে হালকা করতে চান। ঠোঁটের রঙ কালো হওয়ার প্রধাণ কিছু কারণ হচ্ছে – সূর্যালোকের প্রভাব, অ্যালার্জির প্রতিক্রিয়া, নিম্নমানের কসমেটিক ব্যবহার, তামাক চিবানো, অত্যধিক ধূমপান, বেশি পরিমাণে ক্যাফেইন গ্রহণ এবং হরমোনের ভারসাম্যহীনতা। কিছু প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করে ঠোঁটের রঙ হালকা করা যায়। সেই প্রাকৃতিক উপাদানগুলো সম্পর্কে জেনে নেই চলুন।

১। মধু
মধু এমন একটি প্রাকৃতিক উপাদান যা ব্যবহার করে ঠোঁটের কালোভাব দূর করা যায়। মধুর অনেক সৌন্দর্য উপকারিতা আছে তার মধ্যে একটি হচ্ছে মধু ব্যবহারে ঠোঁট নরম হয় এবং ঠোঁটকে গোলাপি আভা দেয়। প্রতিদিন রাতে ঠোঁটে মধু লাগান এবং শুষ্ক হতে দিন, ধুয়ে ফেলবেন না।

২। লেবু
সাধারণত ত্বকের কালো দাগ দূর করতে পারে লেবু। কিন্তু আপনি কি জানেন ঠোঁটের কালোভাব দূর করতেও লেবু অত্যন্ত কার্যকরী? তাই সবচেয়ে ভালো হয় যদি রাতের বেলায় ঠোঁটে লেবু ম্যাসেজ করেন। ঘুমাতে যাওয়ার আগে তাজা লেবুর রস ঠোঁটে লাগান।

৩। স্ট্রবেরি জুস
প্রাকৃতিকভাবে ঠোঁটকে মসৃণ ও গোলাপি করার জন্য স্ট্রবেরি জুস অনেক কার্যকরী। এক টেবিল চামচ স্ট্রবেরি জুস ও এক টেবিল চামচ পেট্রোলিয়াম জেলী ভালোভাবে মিশিয়ে লিপবাম তৈরি করে নিন। এই লিপবাম প্রতিদিন ঠোঁটে লাগান।

৪। গোলাপ
গোলাপের শিতলীকারক ও ময়েশ্চারাইজিং উপাদান আছে। আপনার কালো ঠোঁটকে গোলাপি আভা দিতে সাহায্য করবে গোলাপ। কাঁচা দুধের মধ্যে কয়েকটি গোলাপের পাপড়ি ভিজিয়ে রাখুন এক ঘন্টা যাবত। তারপর পাপড়িগুলো ভালোভাবে পিষে নিয়ে পেস্টের মত মিশ্রণ তৈরি করুন। এই পেস্টের সাথে আধা চা চামচ মধু ও এক চিমটি জাফরান মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি আপনার ঠোঁটে লাগিয়ে ১৫ মিনিট রাখুন। তারপর ধুয়ে ফেলুন। দিনে দুইবার এটি ব্যবহার করুন।

বীটের রস, ডালিমের রস, চিনি, অলিভ ওয়েল, কাঠবাদামের দুধ ব্যবহার করেও ঠোঁটের রঙ হালকা ও গোলাপি করা সম্ভব।



(পরের সংবাদ) »



মন্তব্য চালু নেই