মেইন ম্যেনু

ডাইনোসরের পায়ের ছাপ বলিভিয়ার দেয়ালে! (ভিডিও)

হলিউডের সাড়া জাগানো জুরাসিক পার্ক বা গডজিলা সিনেমার ডাইনোসরগুলো ছিল অ্যানিমেশন। যা সকল বয়সের দর্শককে দিয়েছে সেই প্রাচীন ডাইনোসর দেখার এক অভূত অনুভুতি।

কিন্তু বাস্তবেই এবার বিস্ময়কর ভাবে মিললো সেই প্রাচীন ডাইনোসরের ৫ হাজার পায়ের ছাপ, তাও আবার দেয়ালে!

সম্প্রতি বলিভিয়ার ৩০০ ফুট এর একটি দেয়ালে সত্যিকারের ডাইনোসারের পায়ের ছাপ পাওয়া গেছে। বলিভিয়ার সুক্রে শহর থেকে ৩ মাইল দূরে লাইম স্টোন স্লাব-এ এই ডাইনোসরের পায়ের ছাপগুলো পাওয়া গিয়েছে।

কাল আর্ক নামে পরিচিত এই স্লাব এ আনুমানিক ৪৬২ ধরনের ধরনের ডাইনোসর ও ৮ ধরনের ভিন্ন প্রজাতির ডাইনোসরের ৫ হাজারেরও বেশি পায়ের ছাপ রয়েছে।

দেওয়ালে ডাইনোসরের পায়ের ছাপগুলো পাওয়া যাওয়া, অনেকের মনে প্রশ্ন উঠেছে তাহলে ডাইনোসর কী লম্ব ভাবে হাটতে পারত কিনা? তা নাহলে এই স্লাবে কীভাবে এই পায়ের ছাপগুলো আসলো?

এ প্রসঙ্গে বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, ডাইনোসর ছিল অনেক বড় আর শক্তিশালী, কিন্তু ওরা লম্ব ভাবে হাটতে পারতো না। এই পায়ের ছাপগুলো লক্ষ লক্ষ বছর আগের যখন পৃথিবীতে ছিল টেক্টোনিক প্লেট অ্যাক্টিভিটি। এই টেক্টোনিক প্লেট অ্যাক্টিভিটির ফলে পৃথিবীর প্লেটগুলো প্রতিনিয়ত পরিবর্তন হত। ডাইনোসরের এই পায়ের ছাপগুলো সমতলের স্লাবে পরিবর্তন হয়ে লম্ব আকার ধারণ করেছে।

এই পায়ের ছাপগুলো ক্রিটেসিয়াস সময়ের যখন ওই অঞ্চলে অনেক ডাইনোসর ছিল। কাল আর্ক স্লাবে ডাইনোসরে পায়ের ছাপগুলো যখন প্রথম পরে তখন বৃষ্টি ছিল। পরবর্তীতে তা শুকানোর পরে আবার তা কাদা মাটিতে চাপা পরে।
নিচের ভিডিওটিতে ক্লিক করে দেখে নিন বলিভিয়ার সেই দেয়ালের ডাইনোসর এর পায়ের ছাপগুলো।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন…



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই