মেইন ম্যেনু

ডিমলার প্রবীণ শিক্ষক সন্তোষ কুমার মৈত্রের মৃর্ত্যুতে শোক প্রকাশ

হামিদা আক্তার, ডিমলা (নীলফামারী) থেকে : নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার প্রবীণ শিক্ষক বাবু সন্তোষ কুমার মৈত্রের মৃর্ত্যুতে বিভিন্ন মহলের নবীন-প্রবীন, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব, সাংস্কৃতি অঙ্গনের কলাকুশলী, শিল্পী, নাট্যকার, ব্যবসায়ী সমিতির নেতা, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠারে প্রধানগণসহ সর্বস্তরের মানুষ শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদন জ্ঞাপন করেছেন। বাবু সন্তোষ কুমার মৈত্র ব্যক্তি জীবনে সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক হিসেবে কর্মরত থেকে অবসর জীবন যাপন করছিলেন। উপজেলার দক্ষিন তিতপাড়া (মেডিকেল মোড়) গ্রামের বৈদ্ধনাথ মৈত্রের পুত্র ছিলেন প্রবীণ এ শিক্ষক। তিনি শিক্ষকতা জীবনের পাশাপাশি একজন সাংস্কৃতি ব্যক্তিত্বে উপজেলার সর্বস্তরে পরিচিত ছিলেন। তিনি নাট্যকার ও নাট্যাভিনয়ে পারদর্শী ছিলেন। উপজেলার সকল সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের প্রবীণ এই শি কের উপস্থিতি ছিলো লক্ষনীয়। বার্ধক্য জীবনে অসুস্থ্যতা জনিত কারনে ৯ জানুয়ারী সকাল ৯.১০মিনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করে এহ লোকের মায়া ছেড়ে পরলোকে গমণ করেন। তিনি স্ত্রী-পুত্র ও অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে পরপারে পাড়ি জমান। তার মৃর্ত্যুতে শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন গভীর শোক প্রকাশ করেছেন নীলফামারী-১ আসনের সাংসদ ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ আফতাব উদ্দিন সরকার, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ তবিবুল ইসলাম, আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সারাধর সম্পাদক সহিদুল ইসলাম, সাংস্কৃতি ব্যক্তিত্ব নাট্যকার ও স্বপন বিদ্যা নিকেতনের সহকারী শিক্ষক মোঃ পারভেজ, সুন্দরখাতা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আজিজুল ইসলাম,বাবুরহাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক (বর্তমানে অসুস্থ্য) মাহফুজার রহমান লেবু,বাবুরহাট দোকান মালিক সমিতির সভাপতি ও ডিমলা মহিলা কলেজের ভাইস প্রিন্সিপাল মোঃ আশরাফুল ইসলাম জুয়েল, ডিমলা সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ আবুল কাশেম সরকার, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ রফিজুল ইসলাম, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব আমিনুজ্জামান গাজি, ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ আবু সায়েম, নীলফামারী জেলা পরিষদের সদস্য ফেরদৌস পারভেজ, ঝেল্লাপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ সামছুল হক ,ডিমল উপজেলা যুব দলের সভাপতি ও আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক গোলাম রাব্বানী প্রধান, ডিমলা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি বাদশা সেকেন্দার ভূট্ট, সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম রেজা ও মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা সাংবাদিক হামিদা আক্তার স্মৃতি প্রমূখ। এছাড়াও ডিমলা মেডিকেল মোড়ের ব্যবসায়ীবৃন্দ ও সর্বস্তরের সাধারণ মানুষ প্রবীণ এ শিক্ষকের মৃর্ত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।






মন্তব্য চালু নেই