মেইন ম্যেনু

ঢাকায় জীবনযাত্রার মান বাড়াতে কাজ করছে সরকার

রাজধানী ঢাকার জীবনযাত্রার মান বাড়াতে সরকার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক প্রকল্প হাতে নিয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন। তিনি বলেন, ঢাকার জনসংখ্যা ব্যাপক হারে বাড়ছে, এই জনসংখ্যার জীবনমান উন্নয়ন সরকারের জন্য চ্যালেঞ্জ। এ লক্ষে কাজ করে যাচ্ছে সরকার।

আজ বুধবার সকালে মগবাজার-মৌচাক ফ্লাইওভারের একাংশের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এতে প্রধান অতিথি ছিলেন।

এলজিআরডি মন্ত্রী বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রী পরিকল্পিত ও পরিবেশবান্ধব নগরায়নকে গুরুত্ব দিচ্ছেন। আমরা মনে করি, শুধু আবাসিক এলাকা গড়ে তুললেই চলবে না, নাগরিকদের সুযোগ-সুবিধাও নিশ্চিত করতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, ঢাকা হবে পৃথিবীর ৬ষ্ঠ বৃহত্তম নগরী। আমাদের দেশের জনগণের ঢাকামুখী হওয়ার প্রবণতা দিন দিন বাড়ছে। সেই বিবেচনায় নাগরিক সুবিধা নিশ্চিতের চেষ্টা করছে সরকার। ইতোমধ্যে বেশ কিছু প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হয়েছে, চলমান আছে আরও কয়েকটি প্রকল্প।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, ২০০৮ সালের নির্বাচনে বিশাল সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসে। ক্ষমতায় আসার পরপরই প্রধানমন্ত্রী ঢাকা ও চট্টগ্রামকে যানজটমুক্ত করতে বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেন। এর অংশ হিসেবেই মগবাজার-মৌচাক ফ্লাইওভার করা হয়েছে।

এলজিআরডি মন্ত্রী জানান, এই প্রকল্পের কারণে ঢাকার যানজট অনেকাংশে কমে আসবে। কমবে জ্বালানি খরচ। বাড়বে জীবনযাত্রার মান।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে বাস্তবায়িত এই ফ্লাইওভার নির্মাণে সহযোগিতার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং সৌদি আরবসহ দাতা সংস্থাগুলোর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান এলজিআরডি মন্ত্রী।






মন্তব্য চালু নেই