মেইন ম্যেনু

তালেবানদের গোপনে ভিডিও করলো কিশোরী [ভিডিও]

সম্প্রতি আফগানিস্তানের উত্তরাঞ্চলে এক ছাত্রী বাসে করে তালেবান যোদ্ধাদের টহল পার হওয়ার সময় গোপনে পুরো ঘটনাটি মোবাইল ফোনের ক্যামেরায় ভিডিও করে তা গণমাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়ে ব্যাপক তোলপাড় করেছে।

জানা যায়, ওই ছাত্রীর নাম মিস সাদাত। সে আফগানিস্তানের ওই উত্তরাঞ্চলের মাজার ই শরিফ থেকে প্রায় ৪০০ কিলোমিটার দূরে কোনো একটা জায়গায় যাচ্ছিল। বাস চালকের ঠিক পিছনের আসনেই সে বসেছিল। ওই আসন থেকে তার ক্যামেরায় পুরো দৃশ্যটি তার মোবাইল ফোনের ক্যামেরায় ধারণ করেছিল। তাদের বাস যখন তালেবান অধ্যুষিত এক চেক পয়েন্ট পার হচ্ছিল ঠিক তখনই তালেবানরা তাদের বাস থামিয়ে দিলেন এবং এক তালেবান যোদ্ধা তাদের বাসে ওঠেন।

মৃত্যুভয় এবং অ্যাডভেঞ্চার সত্তার লড়াইয়ে শেষপর্যন্ত সাদাতের অ্যাডভেঞ্চার সত্তা তার মনকে জয় করে নিল আর সে কাঁপা কাঁপা হাতে পুরো দৃশ্যটি ভিডিও করতে লাগলো। সে জানায়, তার তখন মনে হচ্ছিল যদি কোনো ক্রমে কেউ একজন তার এই ভিডিও করা টের পান তাহলে নির্ঘাত মৃত্যু। কিন্তু সাদাতের ক্যামেরা থেমে থাকেনি। সে বাসের চালকের আসনের বসে হাতে ক্যামেরা লুকিয়ে ভিডিও করতে থাকে।

তালেবান যোদ্ধা বাসের চালককে কিছু সাধারণ প্রশ্ন জিজ্ঞেস করলেন। তারপর ওই যোদ্ধা চালকের কাছে জানতে চান সে যোদ্ধা নাকি সাধারণ মানুষ। চালক ভয়ে ভয়ে সব প্রশ্নের জবাব দেয়ার চেষ্টা করেন। তালেবান যোদ্ধা বেশ জোর দিয়ে চালকসহ সবাইকে বলেন, তারা যদি কেউ সরকারি কাজ করে থাকে তাহলে যেন ছেড়ে দেয়।

সাদাতের এই সাহসী ভিডিওটি ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসিতে প্রচার করা হয়। একটা বিষয় সবার মাঝেই বিস্ময়ের জন্ম দেয়। আর তা হল, সাদাতের বয়স তেমন বেশি নয়। তার ওপর সে একজন নারী। কিন্তু সে ওই তালেবান যোদ্ধাদের সামনে যে সাহসের পরিচয় দিয়েছে তা সত্যিই সবার চোখ কপালে তোলার মতো ব্যাপার বটে।






মন্তব্য চালু নেই