মেইন ম্যেনু

তিন লাখ ফ্রি পলিব্যাগ গেল কোথায়!

কোরবানির পশু জবাই শেষে বর্জ্য সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে সংরক্ষণ ও নির্দিষ্ট স্থানে ফেলার জন্য ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে বিভিন্ন পাড়া-মহল্লায় বিতরণের জন্য প্রায় তিন লাখ পিস উন্নত পলিথিনের ব্যাগ বিনামূল্যে বিতরণের পূর্ব ঘোষণা থাকলেও অধিকাংশ এলাকায় বিতরণ করা হয়নি বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সকাল থেকে বৃষ্টির কারণে এমনিতেই পশু জবাই বিলম্বিত হয়। তদুপরি জবাইয়ের পর পলিথিন না পাওয়ায় বর্জ্য সংরক্ষণ ও নির্দিষ্ট স্থানে ফেলায় সমস্যা হয়। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন সূত্রে জানা গেছে, বিনামূল্যে বিতরণের জন্য দুই লাখ ৯০ হাজার ব্যাগ কেনা হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে সরেজমিন লালবাগ, নিউমার্কেট, আজিমপুর, নয়াপল্টন, নবাবগঞ্জসহ কয়েকটি এলাকা ঘুরে এলাকাবাসীর সঙ্গে আলাপকালে জানা গেছে, তাদের কাছে কেউ সিটি কর্পোরেশনের বিনামূল্যের ব্যাগ নিয়ে আসেননি। তবে আজিমপুর সরকারি কলোনি এলাকায় কিছু কিছু উন্নতমানের পলিথিনে বর্জ্য রাখতে দেয়া যায়।

লালবাগের বাসিন্দা জামান জানান, তাদের কাছে সিটি কর্পোরেশনের বিনামূল্যের ব্যাগ না এলেও তারা সে অপেক্ষায় বসে থাকেননি। নিজস্ব উদ্যোগে বর্জ্য অপসারণ করেছেন।

ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর উভয় সিটি কর্পোরেশনের মেয়রসহ শীর্ষ কর্মকর্তারা ঈদের দিন থেকে আগামী ৪৮ ঘ্ণ্টার মধ্যে বর্জ্য অপসারণের ঘোষণা দিয়েছিলেন। অধিকাংশ কর্মকর্তা-কর্মচারীর ছুটিও বাতিল করা হয়। দুপুরের পর থেকে বর্জ্য অপসারণের কাজ শুরু হয়েছে।

ব্যাগ নিয়ে অভিযোগ থাকলেও বিভিন্ন এলাকায় সিটি কর্পোরেশনের নতুন বড় বড় ডাস্টবিন দেখা গেছে। ছোট ডাস্টবিন থেকে বড় ডাস্টবিনে বর্জ্য ফেলা ও পরবর্তীতে সেগুলো গাড়ি করে ডাম্পিং স্টেশনে নিয়ে যেতে নতুন এ ডাস্টবিন দেয়া হয় বলে জানা গেছে।






মন্তব্য চালু নেই