মেইন ম্যেনু

দিনাজপুরের দশমাইলে একটি স্কুলের প্রিন্সিপালসহ ৭ জন আটক

শাহ্ আলম শাহী, স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর থেকেঃ নাশকতামুলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে জিহাদী বই ও দেশীয় অস্ত্রসহ দিনাজপুরে একটি স্কুলের প্রিন্সিপাল এবং ৬ শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। পুলিশ জানিয়ে, আটককৃতরা সকলেই ইসলামী ছাত্রশিবিরের নেতা-কর্মী।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলার দশমাইল নামক স্থানে ভিক্টোরী রেসিডেন্সিয়াল স্কুল সংলগ্ন একটি মেসে অভিযান চালিয়ে এদের আটক করা হয়। পুলিশ এদের কাছ থেকে দেশীয় অস্ত্র, বিভিন্ন জিহাদী বই, ছাত্রশিবিরের পরিচয়পত্র, একটি মোটরসাইকেলসহ বিভিন্ন সরঞ্জামাদি উদ্ধার করে।

আটককৃতরা কাহারোল উপজেলার চকপ্রাণ কৃষ্ণ গ্রামের গোলাম মোস্তফার ছেলে ভিক্টোরী রেসিডেন্সিয়াল স্কুলের প্রিন্সিপাল মো. জাকিরুল ইসলাম (২৬), গড়নরপুর গ্রামের সাজেমান আলীর ছেলে শিক্ষক মো. রফিকুল ইসলাম (২৪), ইটুয়া গ্রামের নাইমুল হক এর ছেলে শিক্ষক মো.শামীম রেজা (২৬), পূর্ব মলি¬কপুর গ্রামের আজদুল হকের ছেলে শিক্ষক মো. আমজাদ হোসেন (২৬), নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ উপজেলার চাঁদখানা গ্রামের কায়েদে আযমের ছেলে শিক্ষক মো. বদরুল ইসলাম (২৩), হাজামান আলীর ছেলে শিক্ষক মো. নুরুল ইসলাম (২০), ঠাকুরগাঁও জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার সিঙ্গারোল গ্রামের সামছুল হকের ছেলে শিক্ষক মো. কাজল (৩২)।

কাহারোল থানার ওসি মোঃ মনসুর আলী সরকার জানান, উপজেলার দশমাইল নামক স্থানে ভিক্টোরী রেসিডেন্সিয়াল স্কুল থেকে নাশকতামুলক কর্মকান্ড চালানোর পরিকল্পনা করছিলো এসব শিক্ষক। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় স্কুল সংলগ্ন মেসে অভিযান চালিয়ে এদের আটক করা হয়।

তারা কাহারোল উপজেলার ৫নং সুন্দরপুর ইউনিয়নের দশমাইল সংলগ্ন পূর্বসাদীপুর গ্রামের আজিজুল ইসলামের বাড়িতে নাশকতা মুলক কর্মকান্ড চালানোর পরিকল্পনা করার সময় জিহাদী বই, দেশীয় অস্ত্র, সাংবাদিকের ভুয়া পরিচয় পত্র, ছাত্র শিবির ও সংগঠনের পরিচয় পত্র সহ ৭ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে।






মন্তব্য চালু নেই