মেইন ম্যেনু

দেশের সব বিমানে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ ফোন নিষিদ্ধ

যুক্তরাষ্ট্র অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বিমানে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ ফোন নিয়ে চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের সঙ্গে সঙ্গে বাংলাদেশের সকল বিমানেও ফোনটি নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে বেসরকারি বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক)। রোববার বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

বেবিচকের ফ্লাইট সেফটি অ্যান্ড রেগুলেশন বিভাগের পরিচালক উইং কমান্ডার চৌধুরী মোহাম্মদ জিয়াউল কবির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। দুই একদিনের মধ্যেই এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

প্রজ্ঞাপন জারির বিষয়ে উইং কমান্ডার চৌধুরী মোহাম্মদ জিয়াউল কবির আরো বলেন, এটি করা হয়েছে নিরাপত্তার স্বার্থে। এ বিষয়ে গত মাসে সব ধরনের ডিভাইস নিয়ে বিমানে চড়ার উপর নিষেধাজ্ঞার আরো একটি প্রজ্ঞাপন জারি করা হলেও এবারই প্রথম এককভাবে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ ফোন নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

শনিবার যুক্তরাষ্ট্রও সব ধরনের বিমানের ফ্লাইটে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ ফোন ব্যবহারের ওপর নিষেধাজ্ঞার আদেশ কার্যকর করে।

বিশ্বের সবচেয়ে বড় স্মার্টফোন তৈরিকারক প্রতিষ্ঠান স্যামসাং। কিন্তু এরই মধ্যে নোট ৭ ফোনের ব্যাটারি বিস্ফোরণে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ফোনটির উৎপাদন ও বিক্রি বন্ধ করে দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

এদিকে অস্ট্রেলিয়ার কান্তাস ও জেটস্টার এয়ারলাইনসের এক বিবৃতিতে বলা হয়, গত কয়েকদিনে বিশ্বব্যাপী নোট ৭-এর ব্যাটারি বিস্ফোরণে বেশ কিছু অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটায় যাত্রীদের মধ্যে উদ্বেগের সৃষ্টি হয়েছে। অনেক দেশ ফোনটি নিষিদ্ধ করেছে।

এমন পরিস্থিতিতে তারাও নোট ৭ ফোন নিয়ে বিমানে যাত্রা নিষিদ্ধ করছে। এতে আরো বলা হয়, হাতব্যাগ ও লাগেজের ভেতরেও নোট ৭ নেয়া যাবে না। এই সিদ্ধান্ত আজ থেকে কার্যকরের কথাও জানায় তারা।

ভার্জিন অস্ট্রেলিয়া, টাইগার এয়ার অস্ট্রেলিয়া ও এয়ার নিউজিল্যান্ডও একই ধরনের নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। ভার্জিন ও এয়ার নিউজিল্যান্ড দুর্ঘটনা এড়াতে যাত্রীদের বিমানবন্দরেই নোট ৭ ফোন আনতে নিষেধ করেছে। এয়ার নিউজিল্যান্ড কঠোরভাবে জানিয়ে দিয়েছে যে তাদের বিমানে ভ্রমণের সময় কোনোভাবেই নোট ৭ বহন করা যাবে না। আর এটিও আজ থেকে কার্যকর করার কথা জানানো হয়।

গত মাসে স্যামসাং ফোন নিয়ে জটিলতা সৃষ্টি হওয়ার পর অস্ট্রেলিয়ার পরিবহন কর্তৃপক্ষ বিমানে ভ্রমণের সময় যাত্রীদের স্মার্টফোন ব্যবহার ও ব্যাটারি চার্জ দেয়া থেকে বিরত থাকার নির্দেশ দিয়েছিল।






মন্তব্য চালু নেই