মেইন ম্যেনু

দেশ ছেড়েছেন প্রথম আফগান নারী পাইলট!

আফগানিস্তান বিমানবাহিনীর প্রথম নারী পাইলট যুক্তরাষ্ট্রে আশ্রয় চেয়েছেন। টেক্সাসে দীর্ঘ ১৫ মাসের প্রশিক্ষণ শেষে যুক্তরাষ্ট্রেই আশ্রয় নেয়ার আগ্রহ শুক্রবার প্রকাশ করেন ক্যাপটেন নিলুফার রহমানি। গতকাল শনিবার গণমাধ্যমের রিপোর্টে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়। আফগান গণমাধ্যম ‘খামা’য় খবরটি প্রথম প্রকাশিত হয়।

রহমানি নিউ ইয়র্ক টাইমসকে বলেন, ‘আফগানিস্তানের পরিবর্তন ঘটছে না। সেখানকার পরিস্থিতি দিন দিন আরো খারাপের দিকে যাচ্ছে।’ তিনি তার মার্কিন প্রশিক্ষকদের বলেন, ‘আমি সামরিক পাইলটই হতে চাই তবে আমার দেশের বাহিনীতে নয়’।

এরই মধ্যে মার্কিন কর্তৃপক্ষের কাছে আশ্রয় চেয়ে আবেদন দাখিল করেছেন রহমানি। ওই আবেদনপত্রে তিনি মার্কিন বিমানবাহিনীতে যোগ দেয়ার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেন। গত বছরের শেষ দিকে রহমানিকে হত্যার হুমকি দেয়া হয়েছিল।

প্রথম মহিলা পাইলট হিসেবে যোগ দেয়ার পর আফগানিস্তানে রহমানি তারকা ব্যক্তিত্বে পরিণত হয়েছেন। গত বছর ওয়াশিংটনে তিনি সাহসিকতা ক্যাটাগরিতে আন্তর্জাতিক নারী হিসেবে পুরস্কার লাভ করেন।

তাকে পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে মার্কিন ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা বলেছিলেন, ‘১৮ বছর বয়সে ফাইট স্কুলে যোগ দেয়ার মাধ্যমে রহমানি তার দেশের তরুণীদের তার পদাঙ্ক অনুসরণে উৎসাহিত করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’






মন্তব্য চালু নেই