মেইন ম্যেনু

ধ্বংসের মুখে’ আইএস: ২২ হাজার জঙ্গির তথ্য ফাঁস

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) ২২ হাজারের বেশি সদস্যের নাম, ঠিকানা, ফোন নম্বর ও পরিবারের তথ্য ফাঁস করে দিয়েছেন সংগঠনটির সাবেক সদস্যরা। গতকাল বুধবার যুক্তরাজ্যের সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ান ফাঁস হওয়া এই সদস্য তালিকা তাদের কাছে রয়েছে এমন দাবি করেছে। এই দাবির পাশাপাশি সংবাদমাধ্যমটি খবর প্রকাশ করে, এই বিপুল সদস্যের তথ্য ফাঁসের ফলে ধ্বংসের মুখে দাঁড়িয়েছে এই জঙ্গি সংগঠনটি।

এদিকে বৃহস্পতিবার সকালে জার্মানির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী থমাস দি মেইজি জানান, আইএসের ২২ হাজার সক্রিয় সদস্যের পরিচয় জার্মান গোয়েন্দা সংস্থার হাতে এসেছে। আইএসের এই সদস্য তালিকায় প্রত্যেক সদস্যের নাম, ঠিকানা, ফোন নম্বর, পারিবারিক তথ্য, রক্তের গ্রুপ ইত্যাদিসহ মোট ২৩টি করে তথ্য রয়েছে। সংগঠনটি থেকে বের হয়ে আসা সাবেক সদস্যরা গোয়েন্দাদের কাছে এসব তথ্য ফাঁস করেছেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

ফক্স নিউজ জানিয়েছে, সম্প্রতি ফ্রি সিরিয়ান আর্মির এক কমান্ডার আইএসে যুক্ত হন, যিনি পরে আইএস থেকে বেরিয়ে আসেন এবং আইএসের অভ্যন্তরীণ পুলিশের তথ্যভাণ্ডার থেকে ওই সব তথ্য চুরি করেন।

এদিকে সিরিয়ার বিরোধীপন্থী ‘জামান আল ওয়াসল’ পত্রিকা এক প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে বিবিসি জানায়, ৪০টি দেশের এক হাজার ৭৩৬ যোদ্ধার আরবিতে লেখা ব্যক্তিগত তথ্য এসেছে জার্মানির হাতে। এতে দেখা গেছে, এর মধ্যে চার ভাগের একভাগ সৌদি আরবের আর বাকিরা তিউনিসিয়া, মরক্কো ও মিসরের নাগরিক।

এদিকে গার্ডিয়ানের প্রতিবেদক জানান, আইএস থেকে পালিয়ে আসা কয়েকজন সদস্য সংগঠনটির কেন্দ্রীয় তথ্যভাণ্ডার থেকে তথ্যগুলো সরিয়ে এনেছেন। এই তালিকায় থাকা জঙ্গিদের বেশির ভাগই মধ্যপ্রাচ্যের বলেও প্রতিবেদনে জানানো হয়। এ ছাড়া ইউরোপের উত্তরাঞ্চল, যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, উত্তর আফ্রিকার বেশ কয়েকটি দেশের আইএস জঙ্গিদের নাম-ঠিকানা এই তালিকায় আছে বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।

এদিকে দ্য ইনডিপেনডেন্ট ব্রিটিশ গোয়েন্দা সংস্থা ‘এমআই-সিক্সের’ গ্লোবাল টেরোরিজম অপারেশন্স বিভাগের সাবেক পরিচালক রিচার্ড ব্যারেটের বরাতে জানিয়েছে, বিপুল জঙ্গির বিষয়ে এই তথ্য সন্ত্রাসবাদ বিশ্লেষকদের জন্য এটি এক অমূল্য উৎস হতে চলেছে।






মন্তব্য চালু নেই