মেইন ম্যেনু

নওশিনের বিয়ের খবর জানলো বিশ্ব

বাংলাদেশে বাল্যবিবাহ এখনো এক বড় সমস্যা। দেশটিতে ৬৫ শতাংশ মেয়ের বিয়ে হচ্ছে আঠারো বছর বয়স পার হওয়ার আগেই। বার্তা সংস্থা গ্যাটি ইমেজেস-এর এক ফটোগ্রাফার তাঁর ক্যামেরায় ধারণ করছেন এমনই একটি বাল্যবিবাহের কিছু ছবি।

image_263155_0.0,,18673057_303,00

নওশিনের বিয়ে

নওশিন আক্তারের বয়স ১৫ বছর। বাবার বাড়ি বাংলাদেশের মানিকগঞ্জে। বিয়ের দিনও সে ছুটে বেড়াচ্ছিল পড়শিদের বাড়ি বাড়ি। সেখান থেকেই ধরে এনে বিয়ের পিড়িতে বসানো হয় তাকে। তার বিয়ের, আইনি দৃষ্টিতে যা অবৈধ, কিছু ছবি থাকলো এই ছবিঘরে।

বিয়ে বাড়িতে উৎসব

আগস্টের ২০ তারিখে বিয়ে হয় নওশিনের। নিজে বিয়ের অর্থ সে তেমন না বুঝলেও, পাড়াপড়শির এই বিয়ে নিয়ে আগ্রহের কমতি ছিল না। বিয়ের দিন উৎসবের এই ছবি জানান দিচ্ছে একটি অপ্রাপ্তবয়স্ক কিশোরের বয়স নিয়ে তাঁদের কোনো ভাবনা নেই।

image_263155_3.0,,18673042_303,00

নওশিনের গোসল

বিয়ের দিন প্রকাশ্যেই গোসল করানো হয় নওশিন আক্তারকে। বাল্যবিবাহের জন্য তাকে প্রস্তুত করার অংশ এই গোসল। অনেকের সঙ্গে এএফপি-র আলোকচিত্রিও দেখেছেন সেই আচার।

বিউটি পার্লারে নওশিন

বিয়ের জন্য সাজাতে নওশিনকে নেয়া হয়েছে বিউটি পার্লারে। বাংলাদেশের আনাচেকানাচে এ রকম পার্লারের সংখ্যা অনেক। ছবিতে কাপড় পরার সময় অপর এক নারীকে দেখছে নওশিন।

image_263155_1.0,,18673023_303,00

কনের মেকআপ

বিয়ের সাজে সাজানো হচ্ছে নওশিনকে। বাংলাদেশে কনেকে বেশ রংচংয়ে মেকআপে সাজানো হয়। অনেক সময় চেহারার রং ফর্সা করার চেষ্টা করা হয় জোর করে, যা অনেকসময় দেখতে কিছুটা দৃষ্টিকটু হলেও ঐতিহাসিকভাবে চলে আসছে।

image_263155_2.0,,18673040_303,00

জোর করে বিছানায় নেয়া হচ্ছে নওশিনকে

নওশিনকে তার এক আত্মীয় জোর করে টেনে নিয়ে যাচ্ছেন একটি বিছানায়, যেখানে তার ছবি তোলা হবে। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন হিউম্যান রাইটস ওয়াচের হিসেব অনুযায়ী, বাংলাদেশে গড়ে ২৯ শতাংশ মেয়ের বিয়ে হয় তাদের বয়স ১৫ পার হওয়ার আগে।

ভিডিও-র জন্য ‘পোজ’

ভিডিও-র জন্য পোজ দিচ্ছে নওশিন আক্তার। তার বিয়ের মুহূর্তগুলো এভাবেই ক্যামেরাবন্দি করেছেন ভাড়া করা আলোকচিত্রিরা।

image_263155_4.0,,18673013_303,00

৩২ বছর বয়সি বর

নওশিনের বরের নাম মোহাম্মদ হাসামুর রহমান, বয়স ৩২ বছর। বিয়ের সন্ধ্যায় অপ্রাপ্তবয়স্ক কনের সঙ্গে ছবির জন্য পোজ দিয়েছেন রহমান। এএফপি-র একজন বিদেশি আলোকচিত্রি সেই বিয়েতে উপস্থিত হতে পারলেও বাংলাদেশের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পাড়েনি গিয়ে বিয়েটি বন্ধ করতে।

শ্বশুড় বাড়ির উদ্দেশ্যে নওশিন

বিয়ে শেষে শ্বশুড় বাড়ির উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছে ১৫ বছর বয়সি নওশিন। পরিবারের সদস্যরা তাকে গাড়িতে তুলে দিচ্ছেন। বাংলাদেশে বাল্যবিবাহের এ সব ছবি গোটা বিশ্বের আলোড়ন তুলেছে। ডয়েচে ভেলে






মন্তব্য চালু নেই