মেইন ম্যেনু

নগ্ন হয়ে সেলফি না দেওয়ায় ‘পণ’ বাড়িয়ে দ্বিগুণ করল বরপক্ষ!

অনেক সময়ই বিয়েতে পণের দাবি সংক্রান্ত বহু ঘটনাই আমাদের চোখে পড়ে। কিন্তু, নগ্ন সেলফি না দেওয়ায় বরপক্ষ পণ বাড়িয়ে দ্বিগুণ করেছে, এমন ঘটনা সচরাচর শোনা যায় না। হ্যাঁ, তবে এবার এমন ঘটনাই ঘটেছে মহারাষ্ট্রের থানে শহরে।

জানা গেছে, মুম্বাইয়ের থানেতে ঘনশ্যাম নগরের বাসিন্দা ৩৩ বছরের জিতেন্দ্র রাধাকৃষ্ণ ঠাকুরের বিয়ের ঠিক হয়েছিল স্থানীয় এক যুবতির সঙ্গে। কিছুদিনের মধ্যেই বিয়ে হওয়ার কথা ছিল তাদের। তাই একে অপরকে ভালো করে জেনে নিতে ফোনে বাক্যালাপ শুরু হয়েছিল নিজেদের মধ্যে।

কিন্তু এরই মধ্যে একদিন নিজের হবু স্ত্রীর কাছে নগ্ন সেলফি চেয়ে বসে ওই যুবক। আর যুবতি তা দিতে রাজি না হওয়ায় অপমানিত বোধ করে জিতেন্দ্র। আর তাতেই নাকি চটে গিয়ে পাত্রীপক্ষের কাছে সে দাবি করে বসে আরও ২-৩ লাখ টাকা পণ। সে জানায়, ওই টাকা দিয়ে তার নতুন বাড়ি বানানোর পরিকল্পনা রয়েছে।

পরে ওই যুবতি যখন জিতেন্দ্রকে জিজ্ঞাসা করে কিসের জন্য এই পণের চাহিদা। তখন জিতেন্দ্র তাকে জানায়, নগ্ন সেলফি না দেওয়ার পরেই এই পণ চাওয়া হয়েছে। এর প্রতিবাদে ওই যুবতি সরাসরি বিয়েতে না করে দেয়। শুধু তাই নয়, মহাত্মা ফুলে থানায় গিয়ে সে জিতেন্দ্র ও তার পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে বলে জানা যায়।






মন্তব্য চালু নেই